যদি কোন স্ত্রীকে তার স্বামী বিছানায় ডাকে,উপেক্ষা করা হারাম

যদি কোন স্ত্রীকে তার স্বামী বিছানায় ডাকে,উপেক্ষা করা হারাম

যদি কোন স্ত্রীকে তার স্বামী বিছানায় ডাকে,উপেক্ষা করা হারাম >> রিয়াদুস সালেহীন  হাদিস শরীফ এর মুল সুচিপত্র দেখুন >> নিম্নে রিয়াদুস সালেহীন হাদিস শরীফ এর একটি পরিচ্ছেদের হাদিস পড়ুন

পরিচ্ছেদ – ৩৩৫ : যদি কোন স্ত্রীকে তার স্বামী বিছানায় ডাকে, তাহলে কোন শরয়ী ওজর ছাড়া তার তা উপেক্ষা করা হারাম

1/1758 عَنْ أَبي هُرَيرَةَ رضي الله عنه قَالَ: قَالَ رَسُولُ اللهِ صلى الله عليه وسلم: «إِذَا دَعَا الرَّجُلُ امْرَأتَهُ إِلَى فِرَاشِهِ فَأَبَتْ، فَبَاتَ غَضْبَانَ عَلَيْهَا، لَعَنَتْهَا المَلاَئِكَةُ حَتَّى تُصْبِحَ». متفق عَلَيْهِ . وفي رواية : «حَتَّى تَرْجِعَ» .

১/১৭৫৮। আবূ হুরায়রা রাঃআঃ হইতে বর্ণিত, রসুলুল্লাহ  সাঃআঃ বলেন, ‘‘যখন কেউ তার স্ত্রীকে স্বীয় বিছানার দিকে [দেহ মিলনের জন্য] ডাকে, আর সে তা প্রত্যাখ্যান করে এবং তার প্রতি [তার স্বামী] রাগান্বিত অবস্থায় রাত কাটায়, তখন ফজর পর্যন্ত ফিরিস্তারা তাকে অভিশাপ করিতে থাকেন।’’ [বুখারী] [1]

অন্য বর্ণনায় আছে, ‘‘তার স্বামীর কাছে না আসা পর্যন্ত [তাকে অভিশাপ করিতে থাকেন]।’’


[1] সহীহুল বুখারী ৩২৩৭, ৫১৯৩, ৫১৯৪, মুসলিম ১৪৩৬, আবূ দাউদ ২১৪১, আহমাদ ৭৪২২, আহমাদ ৮৩৭৩, ৮৭৮৬, ৯৩৭৯, ৯৭০২, ৯৮৬৫, ১০৩৫৩, দারেমী ২২২৮

By ইমাম নওয়াবী

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply