সুরা মুলক বাংলা Sura Al Mulk in Words & Audio

সুরা মুলক বাংলা Sura Al Mulk in Words & Audio

১১৪ টি সুরা >> তাফসীরঃ বুখারী >> তিরমিজি

Arabicতাফসীর

৬৭ – সুরা মুলক – আয়াত : ৩০, মাক্কী, রুকু ২

সুরা মুলক Sura Al Mulk mp3 Download

সুরা মুলক বাংলা অনুবাদ

পরম করুণাময় অতি দয়ালু আল্লাহর নামেبِسۡمِ ٱللَّهِ ٱلرَّحۡمَٰنِ ٱلرَّحِيمِ
(1) বরকতময় তিনি যার হাতে সর্বময় কর্তৃত্ব। আর তিনি সব কিছুর উপর সর্বশক্তিমান।تَبَٰرَكَ ٱلَّذِي بِيَدِهِ ٱلۡمُلۡكُ وَهُوَ عَلَىٰ كُلِّ شَيۡءٖ قَدِيرٌ ١
(2) যিনি মৃত্যু ও জীবন সৃষ্টি করেছেন যাতে তিনি তোমাদেরকে পরীক্ষা করতে পারেন যে, কে তোমাদের মধ্যে আমলের দিক থেকে উত্তম। আর তিনি মহাপরাক্রমশালী, অতিশয় ক্ষমাশীল।ٱلَّذِي خَلَقَ ٱلۡمَوۡتَ وَٱلۡحَيَوٰةَ لِيَبۡلُوَكُمۡ أَيُّكُمۡ أَحۡسَنُ عَمَلٗاۚ وَهُوَ ٱلۡعَزِيزُ ٱلۡغَفُورُ ٢
(3) যিনি সাত আসমান স্তরে স্তরে সৃষ্টি করেছেন। পরম করুণাময়ের সৃষ্টিতে তুমি কোন অসামঞ্জস্য দেখতে পাবে না। তুমি আবার দৃষ্টি ফিরাও, কোন ত্রুটি দেখতে পাও কি?ٱلَّذِي خَلَقَ سَبۡعَ سَمَٰوَٰتٖ طِبَاقٗاۖ مَّا تَرَىٰ فِي خَلۡقِ ٱلرَّحۡمَٰنِ مِن تَفَٰوُتٖۖ فَٱرۡجِعِ ٱلۡبَصَرَ هَلۡ تَرَىٰ مِن فُطُورٖ ٣
(4) অতঃপর তুমি দৃষ্টি ফিরাও একের পর এক, সেই দৃষ্টি অবনমিত ও ক্লান্ত হয়ে তোমার দিকে ফিরে আসবে।ثُمَّ ٱرۡجِعِ ٱلۡبَصَرَ كَرَّتَيۡنِ يَنقَلِبۡ إِلَيۡكَ ٱلۡبَصَرُ خَاسِئٗا وَهُوَ حَسِيرٞ ٤
(5) আমি নিকটবর্তী আসমানকে প্রদীপপুঞ্জ দ্বারা সুশোভিত করেছি এবং সেগুলোকে শয়তানদের প্রতি নিক্ষেপের বস্তু বানিয়েছি। আর তাদের জন্য প্রস্তুত করে রেখেছি জ্বলন্ত আগুনের আযাব।وَلَقَدۡ زَيَّنَّا ٱلسَّمَآءَ ٱلدُّنۡيَا بِمَصَٰبِيحَ وَجَعَلۡنَٰهَا رُجُومٗا لِّلشَّيَٰطِينِۖ وَأَعۡتَدۡنَا لَهُمۡ عَذَابَ ٱلسَّعِيرِ ٥
(6) আর যারা তাদের রবকে অস্বীকার করে, তাদের জন্য রয়েছে জাহান্নামের আযাব। আর কতইনা নিকৃষ্ট সেই প্রত্যাবর্তনস্থল!وَلِلَّذِينَ كَفَرُواْ بِرَبِّهِمۡ عَذَابُ جَهَنَّمَۖ وَبِئۡسَ ٱلۡمَصِيرُ٦
(7) যখন তাদেরকে তাতে নিক্ষেপ করা হবে, তখন তারা তার বিকট শব্দ শুনতে পাবে। আর তা উথলিয়ে উঠবে।إِذَآ أُلۡقُواْ فِيهَا سَمِعُواْ لَهَا شَهِيقٗا وَهِيَ تَفُورُ ٧
(8) ক্রোধে তা ছিন্ন-ভিন্ন হবার উপক্রম হবে। যখনই তাতে কোন দলকে নিক্ষেপ করা হবে, তখন তার প্রহরীরা তাদেরকে জিজ্ঞাসা করবে, ‘তোমাদের নিকট কি কোন সতর্ককারী আসেনি’?تَكَادُ تَمَيَّزُ مِنَ ٱلۡغَيۡظِۖ كُلَّمَآ أُلۡقِيَ فِيهَا فَوۡجٞ سَأَلَهُمۡ خَزَنَتُهَآ أَلَمۡ يَأۡتِكُمۡ نَذِيرٞ ٨
(9) তারা বলবে, ‘হ্যাঁ, আমাদের নিকট সতর্ককারী এসেছিল। তখন আমরা (তাদেরকে) মিথ্যাবাদী আখ্যায়িত করেছিলাম এবং বলেছিলাম, ‘আল্লাহ কিছুই নাযিল করেননি। তোমরা তো ঘোর বিভ্রান্তিতে রয়েছ’।قَالُواْ بَلَىٰ قَدۡ جَآءَنَا نَذِيرٞ فَكَذَّبۡنَا وَقُلۡنَا مَا نَزَّلَ ٱللَّهُ مِن شَيۡءٍ إِنۡ أَنتُمۡ إِلَّا فِي ضَلَٰلٖ كَبِيرٖ ٩
(10) আর তারা বলবে, ‘যদি আমরা শুনতাম অথবা বুঝতাম, তাহলে আমরা জ্বলন্ত আগুনের অধিবাসীদের মধ্যে থাকতাম না’।وَقَالُواْ لَوۡ كُنَّا نَسۡمَعُ أَوۡ نَعۡقِلُ مَا كُنَّا فِيٓ أَصۡحَٰبِ ٱلسَّعِيرِ ١٠
(11) অতঃপর তারা তাদের অপরাধ স্বীকার করবে। অতএব ধ্বংস জ্বলন্ত আগুনের অধিবাসীদের জন্য।فَٱعۡتَرَفُواْ بِذَنۢبِهِمۡ فَسُحۡقٗا لِّأَصۡحَٰبِ ٱلسَّعِيرِ ١١
(12) নিশ্চয় যারা তাদের রবকে না দেখেই ভয় করে তাদের জন্য রয়েছে ক্ষমা ও বড় প্রতিদান।إِنَّ ٱلَّذِينَ يَخۡشَوۡنَ رَبَّهُم بِٱلۡغَيۡبِ لَهُم مَّغۡفِرَةٞ وَأَجۡرٞ كَبِيرٞ ١٢
(13) আর তোমরা তোমাদের কথা গোপন কর অথবা তা প্রকাশ কর, নিশ্চয় তিনি অন্তরসমূহে যা আছে সে বিষয়ে সম্যক অবগত।وَأَسِرُّواْ قَوۡلَكُمۡ أَوِ ٱجۡهَرُواْ بِهِۦٓۖ إِنَّهُۥ عَلِيمُۢ بِذَاتِ ٱلصُّدُورِ ١٣
(14) যিনি সৃষ্টি করেছেন, তিনি কি জানেন না? অথচ তিনি অতি সূক্ষ্মদর্শী, পূর্ণ অবহিত।أَلَا يَعۡلَمُ مَنۡ خَلَقَ وَهُوَ ٱللَّطِيفُ ٱلۡخَبِيرُ ١٤
সুরা মুলক ع রুকু
(15) তিনিই তো তোমাদের জন্য যমীনকে সুগম করে দিয়েছেন, কাজেই তোমরা এর পথে-প্রান্তরে বিচরণ কর এবং তাঁর রিযিক থেকে তোমরা আহার কর। আর তাঁর নিকটই পুনরুত্থান।هُوَ ٱلَّذِي جَعَلَ لَكُمُ ٱلۡأَرۡضَ ذَلُولٗا فَٱمۡشُواْ فِي مَنَاكِبِهَا وَكُلُواْ مِن رِّزۡقِهِۦۖ وَإِلَيۡهِ ٱلنُّشُورُ ١٥
(16) যিনি আসমানে আছেন,[1] তিনি তোমাদের সহ যমীন ধসিয়ে দেয়া থেকে কি তোমরা নিরাপদ হয়ে গেছ, অতঃপর আকস্মিকভাবে তা থর থর করে কাঁপতে থাকবে?ءَأَمِنتُم مَّن فِي ٱلسَّمَآءِ أَن يَخۡسِفَ بِكُمُ ٱلۡأَرۡضَ فَإِذَا هِيَ تَمُورُ ١٦
(17) যিনি আসমানে আছেন, তিনি তোমাদের উপর পাথর নিক্ষেপকারী ঝড়ো হাওয়া পাঠানো থেকে তোমরা কি নিরাপদ হয়ে গেছ, তখন তোমরা জানতে পারবে কেমন ছিল আমার সতর্কবাণী?أَمۡ أَمِنتُم مَّن فِي ٱلسَّمَآءِ أَن يُرۡسِلَ عَلَيۡكُمۡ حَاصِبٗاۖ فَسَتَعۡلَمُونَ كَيۡفَ نَذِيرِ ١٧
(18) আর অবশ্যই তাদের পূর্ববর্তীরাও অস্বীকার করেছিল। ফলে কেমন ছিল আমার প্রত্যাখ্যান (এর শাস্তি)?وَلَقَدۡ كَذَّبَ ٱلَّذِينَ مِن قَبۡلِهِمۡ فَكَيۡفَ كَانَ نَكِيرِ ١٨
(19) তারা কি লক্ষ্য করেনি তাদের উপরস্থ পাখিদের প্রতি, যারা ডানা বিস্তার করে ও গুটিয়ে নেয়? পরম করুণাময় ছাড়া অন্য কেউ এদেরকে স্থির রাখে না। নিশ্চয় তিনি সব কিছুর সম্যক দ্রষ্টা।أَوَ لَمۡ يَرَوۡاْ إِلَى ٱلطَّيۡرِ فَوۡقَهُمۡ صَٰٓفَّٰتٖ وَيَقۡبِضۡنَۚ مَا يُمۡسِكُهُنَّ إِلَّا ٱلرَّحۡمَٰنُۚ إِنَّهُۥ بِكُلِّ شَيۡءِۢ بَصِيرٌ ١٩
(20) পরম করুণাময় ছাড়া তোমাদের কি আর কোন  সৈন্য আছে, যারা তোমাদেরকে সাহায্য করবে ? কাফিররা শুধু তো ধোঁকায় নিপতিত।أَمَّنۡ هَٰذَا ٱلَّذِي هُوَ جُندٞ لَّكُمۡ يَنصُرُكُم مِّن دُونِ ٱلرَّحۡمَٰنِۚ إِنِ ٱلۡكَٰفِرُونَ إِلَّا فِي غُرُورٍ ٢٠
(21) অথবা এমন কে আছে, যে তোমাদেরকে রিযিক দান করবে যদি আল্লাহ তাঁর রিযিক বন্ধ করে দেন? বরং তারা অহমিকা ও অনীহায় নিমজ্জিত হয়ে আছে।أَمَّنۡ هَٰذَا ٱلَّذِي يَرۡزُقُكُمۡ إِنۡ أَمۡسَكَ رِزۡقَهُۥۚ بَل لَّجُّواْ فِي عُتُوّٖ وَنُفُورٍ ٢١
(22) যে ব্যক্তি উপুড় হয়ে মুখের উপর ভর দিয়ে চলে সে কি অধিক হিদায়াতপ্রাপ্ত নাকি সেই ব্যক্তি যে সোজা হয়ে সরল পথে চলে ?أَفَمَن يَمۡشِي مُكِبًّا عَلَىٰ وَجۡهِهِۦٓ أَهۡدَىٰٓ أَمَّن يَمۡشِي سَوِيًّا عَلَىٰ صِرَٰطٖ مُّسۡتَقِيمٖ ٢٢
(23) বল, ‘তিনিই তোমাদেরকে সৃষ্টি করেছেন এবং তোমাদের জন্য শ্রবণ ও দৃষ্টিশক্তি এবং অন্তকরণসমূহ দিয়েছেন। তোমরা খুব অল্পই শোকর কর’।قُلۡ هُوَ ٱلَّذِيٓ أَنشَأَكُمۡ وَجَعَلَ لَكُمُ ٱلسَّمۡعَ وَٱلۡأَبۡصَٰرَ وَٱلۡأَفۡ‍ِٔدَةَۚ قَلِيلٗا مَّا تَشۡكُرُونَ ٢٣
(24) বল, ‘তিনিই  তোমাদেরকে যমীনে সৃষ্টি করেছেন এবং তাঁর কাছেই তোমাদেরকে সমবেত করা হবে’।قُلۡ هُوَ ٱلَّذِي ذَرَأَكُمۡ فِي ٱلۡأَرۡضِ وَإِلَيۡهِ تُحۡشَرُونَ ٢٤
(25) আর তারা বলে, ‘সে ওয়াদা কখন বাস্তবায়িত হবে, যদি তোমরা সত্যবাদী হও’।وَيَقُولُونَ مَتَىٰ هَٰذَا ٱلۡوَعۡدُ إِن كُنتُمۡ صَٰدِقِينَ ٢٥
(26) বল, ‘এ বিষয়ের জ্ঞান আল্লাহরই নিকট। আর আমি তো স্পষ্ট সতর্ককারী মাত্র’।قُلۡ إِنَّمَا ٱلۡعِلۡمُ عِندَ ٱللَّهِ وَإِنَّمَآ أَنَا۠ نَذِيرٞ مُّبِينٞ ٢٦
(27) অতঃপর তারা যখন তা[2] আসন্ন দেখতে পাবে, তখন কাফিরদের চেহারা মলিন হয়ে যাবে এবং বলা হবে, ‘এটাই হল তা, যা তোমরা দাবী করছিলে’।فَلَمَّا رَأَوۡهُ زُلۡفَةٗ سِيٓ‍َٔتۡ وُجُوهُ ٱلَّذِينَ كَفَرُواْ وَقِيلَ هَٰذَا ٱلَّذِي كُنتُم بِهِۦ تَدَّعُونَ ٢٧
(28) বল, ‘তোমরা ভেবে দেখেছ কি’? যদি আল্লাহ আমাকে এবং আমার সাথে যারা আছে, তাদেরকে ধ্বংস করে দেন অথবা আমাদের প্রতি দয়া করেন, তাহলে কাফিরদেরকে যন্ত্রণাদায়ক আযাব থেকে কে রক্ষা করবে’?قُلۡ أَرَءَيۡتُمۡ إِنۡ أَهۡلَكَنِيَ ٱللَّهُ وَمَن مَّعِيَ أَوۡ رَحِمَنَا فَمَن يُجِيرُ ٱلۡكَٰفِرِينَ مِنۡ عَذَابٍ أَلِيمٖ ٢٨
(29) বল, ‘তিনিই পরম করুণাময়। আমরা তাঁর প্রতি ঈমান এনেছি এবং তাঁর উপর তাওয়াক্কুল করেছি। কাজেই তোমরা অচিরেই জানতে পারবে কে স্পষ্ট বিভ্রান্তিতে রয়েছে’?قُلۡ هُوَ ٱلرَّحۡمَٰنُ ءَامَنَّا بِهِۦ وَعَلَيۡهِ تَوَكَّلۡنَاۖ فَسَتَعۡلَمُونَ مَنۡ هُوَ فِي ضَلَٰلٖ مُّبِينٖ ٢٩
(30) বল, ‘তোমরা ভেবে দেখেছ কি, যদি তোমাদের পানি ভূগর্ভে চলে যায়, তাহলে কে তোমাদেরকে বহমান পানি এনে দিবে’ ?قُلۡ أَرَءَيۡتُمۡ إِنۡ أَصۡبَحَ مَآؤُكُمۡ غَوۡرٗا فَمَن يَأۡتِيكُم بِمَآءٖ مَّعِينِۢ ٣٠
সুরা মুলকع রুকু

[1] ‘যিনি আসমানে আছেন’ দ্বারা আল্লাহকে বুঝানো হয়েছে। এর দ্বারা আল্লাহ যে আসমানে আছেন, তা প্রমাণিত হয়।

[2] কিয়ামতের শাস্তি।

Sura Al Mulk in Words

(1)

تَبَٰرَكَ

বড় বরকতময়

Blessed is

ٱلَّذِى

সেই(সত্তা)

He

بِيَدِهِ

যার হাতে

in Whose Hand

ٱلْمُلْكُ

কর্তৃত্ব

(is) the Dominion

وَهُوَ

এবং তিনিই

and He

عَلَىٰ

উপর

(is) over

كُلِّ

সব

every

شَىْءٍ

কিছুর

thing

قَدِيرٌ

ক্ষমতাবান

All-Powerful

(2)

ٱلَّذِى

যিনি

The One Who

خَلَقَ

সৃষ্টি করেছেন

created

ٱلْمَوْتَ

মৃত্যু

death

وَٱلْحَيَوٰةَ

এবং জীবন

and life

لِيَبْلُوَكُمْ

তোমাদের পরীক্ষা করার জন্য

that He may test you

أَيُّكُمْ

তোমাদের মধ্যে কে

which of you

أَحْسَنُ

সর্বোত্তম

(is) best

عَمَلًا

আমলে

(in) deed

وَهُوَ

এবং তিনিই

And He

ٱلْعَزِيزُ

পরাক্রমশালী

(is) the All-Mighty

ٱلْغَفُورُ

ক্ষমাশীল

the Oft-Forgiving

(3)

ٱلَّذِى

তিনিই

The One Who

خَلَقَ

সৃষ্টি করেছেন

created

سَبْعَ

সাত

seven

سَمَٰوَٰتٍ

আকাশ

heavens

طِبَاقًا

স্তরে স্তরে

one above another

مَّا

না

Not

تَرَىٰ

দেখতে পাবে

you see

فِى

মধ্যে

in

خَلْقِ

সৃষ্টির

(the) creation

ٱلرَّحْمَٰنِ

দয়াবানের

(of) the Most Gracious

مِن

কোন

any

تَفَٰوُتٍ

অসঙ্গতি

fault

فَٱرْجِعِ

অতএব ফিরাও

So return

ٱلْبَصَرَ

দৃষ্টিশক্তি

the vision

هَلْ

কি

can

تَرَىٰ

দেখতে পাও

you see

مِن

কোন

any

فُطُورٍ

ত্রুটি

flaw?

(4)

ثُمَّ

আবার

Then

ٱرْجِعِ

ফিরাও

return

ٱلْبَصَرَ

দৃষ্টি

the vision

كَرَّتَيْنِ

বার বার

twice again

يَنقَلِبْ

ফিরে আসবে

Will return

إِلَيْكَ

তোমার দিকে

to you

ٱلْبَصَرُ

দৃষ্টি

the vision

خَاسِئًا

ব্যর্থ হয়ে

humbled

وَهُوَ

এবং তা (হবে)

while it

حَسِيرٌ

ক্লান্তশ্রান্ত

(is) fatigued

(5)

وَلَقَدْ

এবং নিশ্চয়

And certainly

زَيَّنَّا

আমরা সাজিয়েছি

We have beautified

ٱلسَّمَآءَ

আকাশকে

the heaven

ٱلدُّنْيَا

নিকটবর্তী

nearest

بِمَصَٰبِيحَ

প্রদীপরাশি দিয়ে

with lamps

وَجَعَلْنَٰهَا

এবং তা আমরা বানিয়েছি

and We have made them

رُجُومًا

নিক্ষেপ উপকরণ

(as) missiles

لِّلشَّيَٰطِينِ

শয়তানদের জন্য

for the devils

وَأَعْتَدْنَا

এবং আমরা প্রস্তুত করে রেখেছি

and We have prepared

لَهُمْ

তাদের জন্যে

for them

عَذَابَ

শাস্তি

punishment

ٱلسَّعِيرِ

প্রজ্জ্বলিত আগুনের

(of) the Blaze

(6)

وَلِلَّذِينَ

এবং যারা জন্যে

And for those who

كَفَرُوا۟

অস্বীকার করেছে

disbelieved

بِرَبِّهِمْ

তাদের রবকে

in their Lord

عَذَابُ

শাস্তি

(is the) punishment

جَهَنَّمَ

জাহান্নামের

(of) Hell

وَبِئْسَ

এবং অত্যন্ত খারাপ

and wretched is

ٱلْمَصِيرُ

প্রত্যাবর্তন স্থল

the destination

(7)

إِذَآ

যখন

When

أُلْقُوا۟

নিক্ষিপ্ত হবে

they are thrown

فِيهَا

তার মধ্যে

therein

سَمِعُوا۟

তারা শুনবে

they will hear

لَهَا

তার জন্য

from it

شَهِيقًا

বিকট শব্দ

an inhaling

وَهِىَ

এবং তা

while it

تَفُورُ

উদ্বেলিত হবে

boils up

(8)

تَكَادُ

উপক্রম হবে

It almost

تَمَيَّزُ

ফেটে পড়ার

bursts

مِنَ

মধ্য হতে

with

ٱلْغَيْظِ

রোষে

rage

كُلَّمَآ

যখনই

Every time

أُلْقِىَ

নিক্ষিপ্ত হবে

is thrown

فِيهَا

তার মধ্যে

therein

فَوْجٌ

কোন দল

a group

سَأَلَهُمْ

জিজ্ঞেস তাদের করবে

will ask them

خَزَنَتُهَآ

তার রক্ষীরা

its keepers

أَلَمْ

“নাই কি

“Did not

يَأْتِكُمْ

তোমাদের কাছে আসে

come to you

نَذِيرٌ

সতর্ককারী”

a warner?”

(9)

قَالُوا۟

তারা বলবে

They will say

بَلَىٰ

“হ্যাঁ

“Yes

قَدْ

অবশ্যই

indeed

جَآءَنَا

এসেছিল আমাদের (কাছে)

came to us

نَذِيرٌ

সতর্ককারী

a warner

فَكَذَّبْنَا

তবে আমরা মিথ্যারোপ করেছিলাম

but we denied

وَقُلْنَا

এবং আমরা বলে ছিলাম

and we said

مَا

“নাই

“Not

نَزَّلَ

নাযিল করেন

has sent down

ٱللَّهُ

আল্লাহ্‌

Allah

مِن

কোন

any

شَىْءٍ

কিছু

thing

إِنْ

নও

Not

أَنتُمْ

তোমরা

you (are)

إِلَّا

এছাড়া

but

فِى

মধ্যে

in

ضَلَٰلٍ

গুমরাহীর

error

كَبِيرٍ

বড়”

great”

(10)

وَقَالُوا۟

এবং তারা বলবে

And they will say

لَوْ

“‘যদি

“If

كُنَّا

আমরা

we had

نَسْمَعُ

শুনতাম

listened

أَوْ

অথবা

or

نَعْقِلُ

আমরা বিবেচনা করতাম

reasoned

مَا

না

not

كُنَّا

আমরা হতাম

we (would) have been

فِىٓ

মধ্যে

among

أَصْحَٰبِ

অধিবাসীদের

(the) companions

ٱلسَّعِيرِ

প্রজ্বলিত আগুনের”

(of) the Blaze”

(11)

فَٱعْتَرَفُوا۟

এভাবে তারা স্বীকার করবে

Then they (will) confess

بِذَنۢبِهِمْ

তাদের অপরাধকে

their sins

فَسُحْقًا

অভিশাপ অতএব

so away with

لِّأَصْحَٰبِ

অধিবাসীদের জন্য

(the) companions

ٱلسَّعِيرِ

প্রজ্বলিত আগুনের

(of) the Blaze

(12)

إِنَّ

নিশ্চয়

Indeed

ٱلَّذِينَ

যারা

those who

يَخْشَوْنَ

ভয় করে

fear

رَبَّهُم

তাদের রবকে

their Lord

بِٱلْغَيْبِ

অদেখা অবস্থায়

unseen

لَهُم

তাদের জন্য

for them

مَّغْفِرَةٌ

ক্ষমা

(is) forgiveness

وَأَجْرٌ

এবং প্রতিদান

and a reward

كَبِيرٌ

বড়

great

(13)

وَأَسِرُّوا۟

এবং তোমরা গোপন কর

And conceal

قَوْلَكُمْ

তোমাদের কথা

your speech

أَوِ

অথবা

or

ٱجْهَرُوا۟

প্রকাশ কর

proclaim

بِهِۦٓ

তাকে

it

إِنَّهُۥ

তিনি নিশ্চয়ই

Indeed He

عَلِيمٌۢ

খুব জ্ঞাত

(is the) All-Knower

بِذَاتِ

অবস্থা সম্পর্কে

of what (is in)

ٱلصُّدُورِ

অন্তরগুলোর

the breasts

(14)

أَلَا

না কি

Does not

يَعْلَمُ

তিনি জানেন

know

مَنْ

যিনি

(the One) Who

خَلَقَ

সৃষ্টি করেছেন

created?

وَهُوَ

অথচ তিনি

And He

ٱللَّطِيفُ

সূক্ষ্মদর্শী

(is) the Subtle

ٱلْخَبِيرُ

খুব অবগত

the All-Aware

Sura Al Mulk in Words Ruku 1

(15)

هُوَ

তিনিই

He

ٱلَّذِى

যিনি

(is) the One Who

جَعَلَ

বানিয়েছেন

made

لَكُمُ

তোমাদের জন্য

for you

ٱلْأَرْضَ

ভূতলকে

the earth

ذَلُولًا

অধীন

subservient

فَٱمْشُوا۟

তোমরা অতঃপর চল

so walk

فِى

উপর

in

مَنَاكِبِهَا

তার বক্ষের

(the) paths thereof

وَكُلُوا۟

এবং তোমরা খাও

and eat

مِن

হতে

of

رِّزْقِهِۦ

তার রিযক

His provision

وَإِلَيْهِ

এবং তাঁরই দিকে

and to Him

ٱلنُّشُورُ

পুনরুত্থান

(is) the Resurrection

(16)

ءَأَمِنتُم

তোমরা নিরাপদ কি হয়েছ

Do you feel secure

مَّن

(তাঁর থেকে) যিনি

(from Him) Who

فِى

আছেন

(is) in

ٱلسَّمَآءِ

আসমানে

the heaven

أَن

যে

not

يَخْسِفَ

ধসিয়ে দেবেন

He will cause to swallow

بِكُمُ

তোমাদের সহ

you

ٱلْأَرْضَ

মাটিকে

the earth

فَإِذَا

অতঃপর

when

هِىَ

তা

it

تَمُورُ

কাঁপবে

sways?

(17)

أَمْ

অথবা

Or

أَمِنتُم

তোমরা নির্ভয় হয়েছ

do you feel secure

مَّن

(তাঁর থেকে) যিনি

(from Him) Who

فِى

আছেন

(is) in

ٱلسَّمَآءِ

আসমানে

the heaven

أَن

যে

not

يُرْسِلَ

পাঠাবেন

He will send

عَلَيْكُمْ

তোমাদের উপর

against you

حَاصِبًا

কঙ্করবর্ষী ঝঞ্ঝা

a storm of stones?

فَسَتَعْلَمُونَ

তোমরা জানবে তখন

Then you would know

كَيْفَ

কেমন

how

نَذِيرِ

আমার সতর্কীকরণ

(was) My warning?

(18)

وَلَقَدْ

এবং করে ছিল নিশ্চয়

And indeed

كَذَّبَ

মিথ্যারোপ

denied

ٱلَّذِينَ

যারা

those

مِن

(ছিল)

from

قَبْلِهِمْ

তাদের পূর্বে

before them

فَكَيْفَ

কেমন ফলে

and how

كَانَ

ছিল

was

نَكِيرِ

আমার পাক্‌ড়াও

My rejection

(19)

أَوَلَمْ

কি নাই

Do not

يَرَوْا۟

তারা দেখে

they see

প্রতি

{to}

ٱلطَّيْرِ

পাখিগুলির

إِلَى

the birds

فَوْقَهُمْ

তাদের উপরে

above them

صَٰٓفَّٰتٍ

পাখা বিস্তার করে

spreading (their wings)

وَيَقْبِضْنَ

ও গুটিয়ে নেয়

and folding?

مَا

না

Not

يُمْسِكُهُنَّ

তাদের ধরে ধরে (অন্য কেউ)

holds them

إِلَّا

ছাড়া

except

ٱلرَّحْمَٰنُ

দয়াবান

the Most Gracious

إِنَّهُۥ

তিনি নিশ্চয়

Indeed He

بِكُلِّ

সব উপর

(is) of every

شَىْءٍۭ

কিছুর

thing

بَصِيرٌ

দৃষ্টিবান

All-Seer

(20)

أَمَّنْ

অথবা কোন

Who is

هَٰذَا

এমন

this

ٱلَّذِى

যা

the one

هُوَ

সেই

he

جُندٌ

সৈন্যবাহিনী

(is) an army

لَّكُمْ

তোমাদের জন্য আছে

for you

يَنصُرُكُم

তোমাদের সাহায্য করবে

to help you

مِّن

থেকে

from

دُونِ

ছাড়া

besides

ٱلرَّحْمَٰنِ

রহমান

the Most Gracious?

إِنِ

নয়

Not

ٱلْكَٰفِرُونَ

আমান্যকারীরা

(are) the disbelievers

إِلَّا

এ ছাড়া

but

فِى

মধ্যে

in

غُرُورٍ

ধোঁকার

delusion

(21)

أَمَّنْ

কে অথবা আছে

Who is

هَٰذَا

এমন

this

ٱلَّذِى

যে

the one

يَرْزُقُكُمْ

তোমাদের রিযক দেবে

to provide you

إِنْ

যদি

if

أَمْسَكَ

তিনি বন্ধ করেন

He withheld

رِزْقَهُۥ

তার রিযক

His provision

بَل

বরং

Nay

لَّجُّوا۟

তারা অবিচল

they persist

فِى

মধ্যে

in

عُتُوٍّ

খোদাদ্রোহিতার

pride

وَنُفُورٍ

এবং সত্য পরিহারে

and aversion

(22)

أَفَمَن

যে অতএব কি

Then is he who

يَمْشِى

চলে

walks

مُكِبًّا

অধঃগতি

fallen

عَلَىٰ

উপর

on

وَجْهِهِۦٓ

তার মুখের

his face

أَهْدَىٰٓ

অধিক সত্য পথপ্রাপ্ত

better guided

أَمَّن

যে অথবা

or (he) who

يَمْشِى

চলে

walks

سَوِيًّا

সোজাসুজি

upright

عَلَىٰ

উপর

on

صِرَٰطٍ

পথের

(the) Path

مُّسْتَقِيمٍ

সরল

Straight?

(23)

قُلْ

বল

Say

هُوَ

“তিনিই

“He

ٱلَّذِىٓ

যিনি

(is) the One Who

أَنشَأَكُمْ

তোমাদের সৃষ্টি করেছেন

produced you

وَجَعَلَ

এবং দিয়েছেন

and made

لَكُمُ

তোমাদের জন্য

for you

ٱلسَّمْعَ

শ্রবণশক্তি

the hearing

وَٱلْأَبْصَٰرَ

ও দৃষ্টিশক্তি

and the vision

وَٱلْأَفْـِٔدَةَ

এবং অন্তঃকরণ

and the feelings

قَلِيلًا

কমই

Little

مَّا

যা

(is) what

تَشْكُرُونَ

তোমরা শোকর কর”

you give thanks”

(24)

قُلْ

বল

Say

هُوَ

“তিনিই

“He

ٱلَّذِى

যিনি

(is) the One Who

ذَرَأَكُمْ

তোমাদের ছড়িয়ে দিয়েছেন

multiplied you

فِى

মধ্যে

in

ٱلْأَرْضِ

পৃথিবীর

the earth

وَإِلَيْهِ

এবং তাঁরই দিকে

and to Him

تُحْشَرُونَ

তোমাদের একত্রিত করা হবে”

you will be gathered”

(25)

وَيَقُولُونَ

এবং তারা বলে

And they say

مَتَىٰ

“কখন

“When

هَٰذَا

এই

(is) this

ٱلْوَعْدُ

প্রতিশ্রুতি

promise

إِن

যদি

if

كُنتُمْ

তোমরা হও

you are

صَٰدِقِينَ

সত্যবাদী”

truthful?”

(26)

قُلْ

তুমি বল

Say

إِنَّمَا

“শুধুমাত্র

“Only

ٱلْعِلْمُ

(তার) জ্ঞান

the knowledge

عِندَ

কাছে

(is) with

ٱللَّهِ

আল্লাহর

Allah

وَإِنَّمَآ

এবং শুধুমাত্র

and only

أَنَا۠

আমি

I am

نَذِيرٌ

সাবধানকারী

a warner

مُّبِينٌ

স্পষ্ট”

clear”

(27)

فَلَمَّا

যখন পরে

But when

رَأَوْهُ

তা দেখবে

they (will) see it

زُلْفَةً

নিকটে

approaching

سِيٓـَٔتْ

মলিন হবে

(will be) distressed

وُجُوهُ

মুখগুলো

(the) faces

ٱلَّذِينَ

যারা (তাদের)

(of) those who

كَفَرُوا۟

অস্বীকার করেছে

disbelieved

وَقِيلَ

এবং বলা হবে

and it will be said

هَٰذَا

“এই

“This

ٱلَّذِى

যা (সেই)

(is) that which

كُنتُم

তোমরা ছিলে

you used (to)

بِهِۦ

তা সম্পর্কে

for it

تَدَّعُونَ

দাবি করতে”

call”

(28)

قُلْ

বল

Say

أَرَءَيْتُمْ

“তোমরা চিন্তা কি করেছ

“Have you seen

إِنْ

যদি

if

أَهْلَكَنِىَ

আমাকে ধ্বংস করেন

destroys me

ٱللَّهُ

আল্লাহ

Allah

وَمَن

এবং যারা

and whoever

مَّعِىَ

আমার সাথে

(is) with me

أَوْ

অথবা

or

رَحِمَنَا

আমাদের প্রতি দয়া করেন

has mercy upon us

فَمَن

কে কিন্তু

then who

يُجِيرُ

আশ্রয় দেবে

(can) protect

ٱلْكَٰفِرِينَ

অস্বীকার কারীদের

the disbelievers

مِنْ

থেকে

from

عَذَابٍ

আযাব

a punishment

أَلِيمٍ

অত্যন্ত পীড়াদায়ক”

painful”

(29)

قُلْ

বল

Say

هُوَ

“তিনিই

“He

ٱلرَّحْمَٰنُ

পরম করুণাময়

(is) the Most Gracious;

ءَامَنَّا

আমরা ঈমান এনেছি

we believe

بِهِۦ

তার উপর

in Him

وَعَلَيْهِ

এবং তার উপর

and upon Him

تَوَكَّلْنَا

আমরা নির্ভর করেছি

we put (our) trust

فَسَتَعْلَمُونَ

অতএব শীঘ্রই তোমরা জানতে পারবে

So soon you will know

مَنْ

কে

who

هُوَ

সে

(is) it

فِى

মধ্যে

(that is) in

ضَلَٰلٍ

গুমরাহীর

error

مُّبِينٍ

সুস্পষ্ট”

clear”

(30)

قُلْ

বলো

Say

أَرَءَيْتُمْ

“তোমরা ভেবে কি দেখেছ

“Have you seen

إِنْ

যদি

if

أَصْبَحَ

হয়ে যায়

becomes

مَآؤُكُمْ

তোমাদের পানি

your water

غَوْرًا

ভূগর্ভস্থ

sunken

فَمَن

কে তবে

then who

يَأْتِيكُم

তোমাদের কাছে আনবে

could bring you

بِمَآءٍ

পানি

water

مَّعِينٍۭ

প্রবহমান”

flowing?”

Sura Al Mulk in Words Ruku 2

৬৬ সুরা তাহরীম << সুরা মুলক >> ৬৮ সুরা কালাম

By Quran Sharif

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply