নবী [সাঃআঃ] -এর ঘামের সুগন্ধ এবং তা থেকে বারাকাত লাভ

নবী [সাঃআঃ] -এর ঘামের সুগন্ধ এবং তা থেকে বারাকাত লাভ

নবী [সাঃআঃ] -এর ঘামের সুগন্ধ এবং তা থেকে বারাকাত লাভ >> সহীহ মুসলিম শরীফ এর মুল সুচিপত্র দেখুন >> নিম্নে মুসলিম শরীফ এর একটি অধ্যায়ের হাদিস পড়ুন

২২. অধ্যায়ঃ নবী [সাঃআঃ] -এর ঘামের সুগন্ধ এবং তা থেকে বারাকাত লাভ

৫৯৪৯. আনাস [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] আমাদের গৃহে আসলেন এবং আরাম করিলেন। তিনি ঘর্মাক্ত হলেন, আর আমার মা একটি ছোট বোতল নিয়ে মুছে তাতে ভরতে লাগলেন। নবী [সাঃআঃ] জাগ্রত হলেন। তিনি প্রশ্ন করিলেন, হে উম্মু সুলায়ম! একি করছ? আমার মা বলিলেন, এ হচ্ছে আপনার ঘাম, যা আমরা সুগন্ধির সাথে মেশাই, আর এ তো সব সুগন্ধির সেরা সুগন্ধি।

[ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৮৪৭, ইসলামিক সেন্টার-৫৮৮২]

৫৯৫০. আনাস ইবনি মালিক [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, নবী [সাঃআঃ] উম্মু সুলায়মের গৃহে যেতেন এবং তার বিছানায় আরাম করিতেন আর উম্মু সুলায়ম তখন গৃহে থাকত না। আনাস [রাদি.] বলেন, একদিন তিনি এলেন এবং তার বিছানায় ঘুমালেন। উম্মু সুলায়মকে বলা হলো, ইনি নবী [সাঃআঃ] তোমার গৃহে, তোমার বিছানায় ঘুমিয়ে গেছেন। আনাস [রাদি.] বলেন, উম্মু সুলায়ম গৃহে প্রবেশ করিলেন, নবী [সাঃআঃ] তখন ঘর্মাক্ত হয়েছেন, আর তাহাঁর ঘাম চামড়ার বিছানার উপর জমে গেছে, উম্মু সুলায়ম তার কৌটা খুললেন এবং সে ঘাম মুছে মুছে ছোট একটি বোতলে ভরতে লাগলেন। নবী [সাঃআঃ] হঠাৎ উঠে গেলেন এবং বলিলেন, হে উম্মু সুলায়ম! তুমি কি করছ? তিনি বলিলেন, হে আল্লাহ্‌র রসূল! আমাদের শিশুদের জন্য তার বারাকাত নিচ্ছি। রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বললেনঃ ভাল করেছ।

[ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৮৪৮, ইসলামিক সেন্টার-৫৮৮৩]

৫৯৫১. উম্মু সুলায়ম [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

নবী [সাঃআঃ] তার নিকট আসতেন এবং বিশ্রাম নিতেন, উম্মু সুলায়ম তাহাঁর জন্য একটা চামড়ার বিছানা বিছিয়ে দিলে তিনি তার উপর কায়লূলা৩৫ করিতেন। তিনি প্রচণ্ড ঘামতেন আর উম্মু সুলায়ম তা একত্র করিতেন এবং সুগন্ধির বোতলে তা মিশিয়ে রাখতেন। নবী [সাঃআঃ] বলেন, হে উম্মু সুলায়ম! এ কী করছ? তিনি বলিলেন, আপনার ঘাম, আমি সেটা সুগন্ধির সঙ্গে মিশিয়ে রাখি।

[ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৮৪৯, ইসলামিক সেন্টার-৫৮৮৪]

৩৫ দুপুরে খাবার পর কিছুক্ষণ শুয়ে বিশ্রাম করাকে “কায়লুলা” বলা হয়।

By ইমাম মুসলিম

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply