ফল পরিপক্ক হওয়ার পূর্বে বিক্রি করা নিষেধ

ফল পরিপক্ক হওয়ার পূর্বে বিক্রি করা নিষেধ

ফল পরিপক্ক হওয়ার পূর্বে বিক্রি করা নিষেধ >> সহীহ মুসলিম শরীফ এর মুল সুচিপত্র দেখুন >> নিম্নে মুসলিম শরীফ এর একটি অধ্যায়ের হাদিস পড়ুন

১৩. অধ্যায়ঃ ফল পরিপক্ক হওয়ার পূর্বে বিক্রি করা নিষেধ

৩৭৫৪

ইবনি উমর [রা.] হইতে বর্ণীতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] ফল উপযোগী হওয়ার পূবেৃ বিক্রি করিতে নিষেধ করিয়াছেন। নিষেধ করিয়াছেন ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়কেই। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২০, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭১৯]

৩৭৫৫

ইবনি উমর [রা.]-এর সূ্ত্রে, নবী [সাঃআঃ] হইতে বর্ণীতঃ

ইবনি উমর [রাদি.]-এর সূ্ত্রে, নবী [সাঃআঃ] থেকে অনুরূপ হাদীস বর্ণনা করেন। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২০, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২০]

৩৭৫৬

ইবনি উমর [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

রসূলুল্লাহ [সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম] পাকার আগে খেজুর বিক্রি করিতে এবং সাদা হওয়ার আগে ও দুর্যোগ-মুক্ত হওয়ার পূর্বে বিক্রি করিতে নিষেধ করিয়াছেন। আর ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়কেই তিনি নিষেধ করিয়াছেন। [ইফা. ৩৭২১, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২১]

৩৭৫৭

ইবনি উমর [রা.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ পরিপক্ক হওয়ার আগে ও প্রাকৃতিক দুর্যোগ কেটে যাওয়ার পূর্বে তোমরা ফল ক্রয় করো না।

বর্ণনাকারী বলেনঃ খাওয়ার যোগ্য হওয়ার অর্থ লাল বর্ণ ও হলদে বর্ণ ধারণ করা। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২২, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২২]

৩৭৫৮

ইয়াহ্ইয়া [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণীতঃ

ইয়াহ্ইয়া [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে উক্ত সানাদে বর্ণনা করেন, যতক্ষণ না তা পরিপক্ক হয়। এর পরবর্তী অংশ তিনি উল্লেখ করেননি। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৩, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৩]

৩৭৫৯

ইবনি উমর [রা.] সূত্রে নবী [সাঃআঃ] হইতে বর্ণীতঃ

আবদুল ওয়াহব বর্ণিত হাদীসের অনুরূপ বর্ণনা করেন। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৪, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৪]

৩৭৬০

ইবনি উমর [রা.]-এর সূ্ত্রে নবী [সাঃআঃ] হইতে বর্ণীতঃ

মালিক ও উবাইদুল্লাহ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] বর্ণিত হাদীসের অনুরূপ হাদীস বর্ণনা করেন। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৫, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৫]

৩৭৬১

ইবনি উমর [রা.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ পরিপক্ক হওয়ার আগে তোমরা ফল বিক্রি করো না। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৬, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৬]

৩৭৬২

যুহায়র ইবনি হার্ব [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] সুফ্ইয়ান [রহমাতুল্লাহি আলাইহি]-এর সূত্রে এবং ইবনিল মুসান্না [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] ও শুবাহ্ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] সূত্রে আবদুল্লাহ ইবনি দীনার [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণীতঃ

উপরোক্ত হাদীস বর্ণনা করেন। অবশ্য শুবার বর্ণনায় এতটুকু অতিরিক্ত আছে যে, ইবনি উমর [রাদি.]-এর কাছে পরিপক্ক হওয়ার অর্থ কী, জিজ্ঞেস করা হলে তিনি বলেনঃ প্রাকৃতিক দূর্যোগ পার হওয়া। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৭, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৭]

৩৭৬৩

জাবির [রা.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] নিষেধ করিয়াছেন অথবা তিনি বলেন, আমাদের নিষেধ করিয়াছেন ফল পরিপক্ক হওয়ার পূর্বে তা বিক্রি করিতে। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৮, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৮]

৩৭৬৪

জাবির ইবনি আবদিল্লাহ [রা.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] নিষেধ করিয়াছেন ফল আহারযোগ্য হওয়ার আগেই বিক্রি করিতে। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭২৯, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭২৯]

৩৭৬৫

আবুল বুখ্‌তারী [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, আমি ইবনি আব্বাস [রাদি.]-এর নিকট গাছে থাকা খেজুর বিক্রি বিষয়ে জানতে চাইলাম। তখন তিনি বলিলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] গাছের খেজুর বিক্রি করিতে নিষেধ করিয়াছেন যতক্ষণ না তা খাওয়া যায় বা খাওয়ার যোগ্য হয় এবং ওজন করা যায়। রাবী বলেন, আমি ইবনি আব্বাস [রাদি.]-কে জিজ্ঞেস করলাম কিভাবে ওজন করিবে? তখন তার পাশেই অবস্থানকারী জনৈক ব্যক্তি উত্তর দিল- পরিমাণ করিবে। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭৩০, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭৩০]

৩৭৬৬

আবু হুরাইরাহ [রা.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ ফল খাওয়ার উপযোগী হওয়ার আগে তোমরা ক্রয় করিবে না। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৩৭৩১, ইসলামিক সেন্টার- ৩৭৩১]

By মুসলিম শরীফ

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply