যে কোন পশু পাখীকে পান করানো ও খাবার দেওয়ার ফযীলাত

যে কোন পশু পাখীকে পান করানো ও খাবার দেওয়ার ফযীলাত

যে কোন পশু পাখীকে পান করানো ও খাবার দেওয়ার ফযীলাত >> সহীহ মুসলিম শরীফ এর মুল সুচিপত্র দেখুন >> নিম্নে মুসলিম শরীফ এর একটি অধ্যায়ের হাদিস পড়ুন

৪১. অধ্যায়ঃ যে কোন পশু পাখীকে পান করানো ও খাবার দেওয়ার ফযীলাত

৫৭৫২

আবু হুরাইরাহ [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ জনৈক লোক কোন রাস্তা দিয়ে হাঁটছিল, এমতাবস্থায় সে খুব তৃষ্ণার্ত হলো। সে একটি কূপ দেখিতে পেয়ে তাতে নেমে পড়ল এবং পানি পান করিল। তারপর সে বেরিয়ে এলো। সে সময় দেখিতে পেল যে, [তৃষ্ণায় কাতর] একটি কুকুর জিভ বের করে হাঁপাচ্ছে আর মাটি চাটছে। লোকটি [মনে মনে] বলিল, কুকুরটিকে আমার মতো তীব্র তৃষ্ণায় পেয়েছে। তখন সে কুয়ায় নামল এবং তার [চামড়ার] মোজায় পানি ভরল। তারপরে সে তার মুখ বন্ধ করে উপরে উঠল এবং কুকুরটিকে পান করাল। মহান আল্লাহতার [এ আমালের] কদর করিলেন এবং তাকে মাফ করে দিলেন। [সাহাবীগণ] প্রশ্ন করিলেন, হে আল্লাহ রসূল! তাহলে কি আমাদের জন্য এসব প্রাণীর ব্যাপারেও [সদাচরণে] সওয়াব রয়েছে? তিনি বললৈন, প্রতিটি তাজা কলিজায় সাওয়াব রয়েছে।

[ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৬৬৪, ইসলামিক সেন্টার- ৫৬৯৪]

৫৭৫৩

আবু হুরাইরাহ [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

আবু হুরাইরাহ [রাদি.] -এর সানাদে নবী [সাঃআঃ] হইতে বর্ণিত যে, এক বেশ্যা নারী কোন এক গরমের দিনে একটি কুকুরকে একটি কুয়ার পাশে ঘুরতে দেখিতে পেল। সেটি তৃষ্ণায় তার জিভ বের করে হাঁপাচ্ছিল। তখন সে তার [চামড়ার] মোজা দ্বারা তার জন্য পানি তুলে আনল এবং পান করাল। অবশেষে তাকে ক্ষমা করে দেয়া হলো। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৬৬৫, ইসলামিক সেন্টার- ৫৬৯৫]

৫৭৫৪

আবু হুরাইরাহ [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ একটি কুকুর একটি [পানি ভর্তি] কূপের চতুর্দিকে ঘুরপাক খাচ্ছিল। তৃষ্ণায় যে প্রায় মৃত্যু পথযাত্রী হয়েছি।। সে সময় বানী ইসরাঈলের পতিতাদের এক পতিতা তাকে লক্ষ্য করলো এবং [দয়াদ্র হয়ে] সে তার [চামড়ার] মোজা খুলে ফেলল এবং তার জন্য পানি উঠিয়ে এনে তাকে পান করিয়ে দিল। যার কারণে তাকে ক্ষমা করে দেয়া হলো।

[ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৬৬৬, ইসলামিক সেন্টার- ৫৬৯৬]

By মুসলিম শরীফ

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply