নামাজ আদায়ের জন্যে পবিত্রতার আবশ্যকতা

নামাজ আদায়ের জন্যে পবিত্রতার আবশ্যকতা

নামাজ আদায়ের জন্যে পবিত্রতার আবশ্যকতা  >> সহীহ মুসলিম শরীফ এর মুল সুচিপত্র দেখুন >> নিম্নে মুসলিম শরীফ এর একটি অধ্যায়ের হাদিস পড়ুন

২. অধ্যায়ঃ নামাজ আদায়ের জন্যে পবিত্রতার আবশ্যকতা

৪২৩

মুসআব ইবনি সা দ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, আবদুল্লাহ ইবনি উমর [রাদি.] অসুস্থ ইবনি আমিরকে দেখিতে গিয়েছিলেন। তখন ইবনি আমির তাঁকে বলিলেন, হে ইবনি উমর! আপনি কি আমার জন্যে আল্লাহর কাছে দুআ করেন না? ইবনি উমর বলিলেন, আমি রাসুলুল্লাহ[সাঃআঃ]-কে বলিতে শুনেছি যে, তাহারাত ব্যতিরেকে নামাজ কবূল হয় না। খিয়ানাতের সম্পদ থেকে সদাকাহ্‌ও কবূল হয় না। আর তুমি তো ছিলে বাস্‌রার শাসনকর্তা। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৪২৬, ইসলামিক সেন্টার-৪৪২]

এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

৪২৪

শুবাহ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণীতঃ

অন্য সূত্রে আবু বাক্‌র ইবনি আবু শাইবাহ্ [রাদি.] …. ইসমাঈল [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] থেকে, সকলে সিমাক ইবনি হার্‌ব [রহমাতুল্লাহি আলাইহি]-এর সূত্রে নবী[সাঃআঃ] থেকে অনুরূপ বর্ণনা করিয়াছেন। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৪২৭, ইসলামিক সেন্টার- ৪৪৩]

এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

৪২৫

আবু হুরাইরাহ্[রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি আল্লাহর রসূল মুহাম্মাদ [সাঃআঃ] থেকে কতগুলো হাদীস বর্ণনা করিয়াছেন। তার মধ্য থেকে একটি হাদীস তিনি এভাবে বর্ণনা করিয়াছেন, রাসুলুল্লাহ[সাঃআঃ] বলেছেনঃ তোমাদের কারো ওযূ নষ্ট হলে পুনরায় ওযূ না করা পর্যন্ত তার নামাজ কবূল হয় না। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৪২৮, ইসলামিক সেন্টার-৪৪৪]

এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

By মুসলিম শরীফ

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply