কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু অধ্যায় । মেহমানদারী ও এতদসংক্রান্ত

কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু অধ্যায় । মেহমানদারী ও এতদসংক্রান্ত

কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু অধ্যায় । মেহমানদারী ও এতদসংক্রান্ত , এই পর্বের হাদীস =৬ টি (১১২৩-১১২৮) >> আল লুলু ওয়াল মারজান এর মুল সুচিপত্র দেখুন

পর্ব-৩১ঃ কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু

পর্ব-৩১ঃ কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু
৩১/২. কোন চতুষ্পদ জন্তুর দুধ মালিকের বিনা অনুমতিতে দোহন করা হারাম।
৩১/৩. মেহমানদারী ও এতদসংক্রান্ত

কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু

১১২৩. যায়দ ইবনি খালিদ [রাদি.] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, এক ব্যক্তি আল্লাহর রসূল  [সাঃআঃ] -এর নিকট এসে পড়ে থাকা জিনিস সম্পর্কে জিজ্ঞেস করিল। তিনি বলিলেন, থলেটি এবং তার মুখের বন্ধনটি চিনে রাখ। তারপর এক বছর পর্যন্ত তা ঘোষণা করিতে থাক। যদি তার মালিক এসে যায় তো ভাল। তা না হলে সে ব্যাপারে তুমি যা ভাল মনে কর তা করিবে। সে আবার জিজ্ঞেস করিল, হারানো বকরি কী করব? তিনি বলিলেন, সেটি হয় তোমার, না হয় তোমার ভাইয়ের, না হয় নেকড়ে বাঘের। সে আবার জিজ্ঞেস করিল, হারানো উট হলে কী করব? তিনি বলিলেন, তাতে তোমার প্রয়োজন কী? তার সঙ্গে তার মশ্‌ক ও খুর রয়েছে। সে জলাশয়ে উপস্থিত হইবে এবং গাছপালা খাবে, শেষ পর্যন্ত তার মালিক তাকে পেয়ে যাবে।

[বোখারী পর্ব ৪২ অধ্যায় ১২ হাদীস নং ২৩৭২; মুসলিম ৩১ অধ্যায়ের প্রথমে, হাঃ ১৭২২] কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু -এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

১১২৪. উবাই ইবনি কাব [রাদি.] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, নাবী [সাঃআঃ]-এর যুগে আমি একটি থলে পেয়েছিলাম, এর মধ্যে একশ দীনার ছিল। আমি এটা নাবী [সাঃআঃ]-এর কাছে নিয়ে গেলাম। তিনি বলিলেন, এক বছর পর্যন্ত তুমি এটার ঘোষণা দিতে থাক। কাজেই আমি এক বছর পর্যন্ত এর ঘোষণা দিলাম। এরপর আমি তাহাঁর কাছে এলাম। তিনি আরো এক বছর ঘোষণা দিতে বলিলেন। আমি আরো এক বছর ঘোষণা দিলাম। এরপর আমি আবার তাহাঁর কাছে এলাম। তিনি আবার এক বছর ঘোষণা দিতে বলিলেন। আমি আরো এক বছর ঘোষণা দিলাম। এরপর আমি চতুর্থবার তাহাঁর কাছে আসলাম। তিনি বলিলেন, থলের ভিতরের দীনারের সংখ্যা, বাঁধন এবং থলেটি চিনে রাখ। যদি মালিক ফিরে আসে তাকে দিয়ে দাও। নতুবা তুমি নিজে তা ব্যবহার কর।

[বোখারী পর্ব ৪৫ অধ্যায় ১০ হাদীস নং ২৪৩৭; মুসলিম ৩১/১, হাঃ ১৭২৩] কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু -এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

৩১/২. কোন চতুষ্পদ জন্তুর দুধ মালিকের বিনা অনুমতিতে দোহন করা হারাম।

১১২৫. আবদুল্লাহ ইবনি উমার [রাদি.] হইতে বর্ণিতঃ

রাসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেন, অনুমতি ব্যতীত কারো পশু কেউ দোহন করিবে না। তোমাদের কেউ এটা কি পছন্দ করিবে যে, তার [তোশাখানায়] ভান্ডারে কোন ব্যক্তি এসে ভাণ্ডার ভেঙ্গে ফেলে এবং ভাণ্ডারের শস্য নিয়ে যায়? তাহাদের পশুগুলোর স্তন তাহাদের খাদ্য সংরক্ষিত রাখে। কাজেই কারো পশু তার অনুমতি ব্যতীত কেউ দোহন করিবে না।

[বোখারী পর্ব ৪৫ অধ্যায় ৮ হাদীস নং ২৪৩৫; মুসলিম ৩১/২, হাঃ ১৫০৬] কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু -এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

৩১/৩. মেহমানদারী ও এতদসংক্রান্ত

১১২৬. আবু শুরায়হ্ আদাবী [রাদি.] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, নাবী [সাঃআঃ] যখন কথা বলেছিলেন, তখন আমার দুকান [সে কথা] শুনছিল ও আমার দুচোখ [তাঁকে] দেখছিল। তিনি বলছিলেনঃ যে ব্যক্তি আল্লাহ ও শেষ দিনের প্রতি বিশ্বাস রাখে, সে যেন তার প্রতিবেশীকে সম্মান করে। যে ব্যক্তি আল্লাহ ও শেষ দিনের উপর বিশ্বাস করে সে যেন তার মেহমানকে সম্মান করে তার প্রাপ্যের ব্যাপারে। জিজ্ঞেস করা হলোঃ মেহমানের প্রাপ্য কী, হে আল্লাহ্‌র রসূল  [সাঃআঃ]? তিনি বললেনঃ একদিন একরাত ভালরূপে মেহমানদারী করা আর তিন দিন হলে [সাধারণ] মেহমানদারী, আর তার চেয়েও অধিক হলে তা হল তার প্রতি অনুগ্রহ। যে ব্যক্তি আল্লাহ ও আখিরাতের দিনের প্রতি বিশ্বাস রাখে, সে যেন ভাল কথা বলে অথবা নীরব থাকে।

[বোখারী পর্ব ৭৮ অধ্যায় ৩১ হাদীস নং ৬০১৯; মুসলিম ৩১/৩ হাঃ ৪৮] কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু -এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

১১২৭. আবু শুরায়হ্ কাবী [রাদি.] হইতে বর্ণিতঃ

রাসূলুল্লাহ বলেনঃ যে ব্যক্তি আল্লাহ্‌তে ও শেষ দিনে ঈমান রাখে, সে যেন মেহমানের সম্মান করে। মেহমানের সম্মান একদিন ও একরাত। আর সাধারণ মেহমানদারী তিনদিন ও তিনরাত। এরপরে [তা হইবে] সদাকাহ। মেযবানকে কষ্ট দিয়ে তার কাছে মেহমানের অবস্থান হালাল নয়

। [বোখারী পর্ব ৭৮ অধ্যায় ৮৫ হাদীস নং ৬১৩৫; মুসলিম ৩১/৩, হাঃ ৪৮] কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু -এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

১১২৮. উকবাহ ইবনি আমির [রাদি.] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমরা নাবী [সাঃআঃ]-কে বললাম, আপনি যখন আমাদের কোন অভিযানে পাঠান, আর আমরা এমন গোত্রের কাছে অবতরণ করি, যারা আমাদের মেহমানদারী করে না। এ ব্যাপারে আপনি কী বলেন? তিনি আমাদেরকে বলিলেন, যদি তোমরা কোন গোত্রের কাছে অবতরণ কর এবং তোমাদের জন্য যদি উপযুক্ত মেহমানদারীর আয়োজন করা হয়, তবে তোমরা তা গ্রহণ করিবে, আর যদি তা না করে তবে তাহাদের কাছ হইতে মেহমানের হক আদায় করে নিবে।

[বোখারী পর্ব ৪৬ অধ্যায় ১৮ হাদীস নং ২৪৬১; মুসলিম ৩১/৩, হাঃ ১৭২৭] কুড়িয়ে পাওয়া বস্তু -এই হাদীসটির তাহক্কিকঃ সহীহ হাদীস

By লুলু ওয়াল মারজান

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply