নতুন লেখা

রসূলুল্লাহ সাঃএর আল্লাহ সম্বন্ধে জ্ঞান এবং তাঁকে অত্যধিক ভয় করা

রসূলুল্লাহ সাঃএর আল্লাহ সম্বন্ধে জ্ঞান এবং তাঁকে অত্যধিক ভয় করা

রসূলুল্লাহ সাঃএর আল্লাহ সম্বন্ধে জ্ঞান এবং তাঁকে অত্যধিক ভয় করা >> সহীহ মুসলিম শরীফ এর মুল সুচিপত্র দেখুন >> নিম্নে মুসলিম শরীফ এর একটি অধ্যায়ের হাদিস পড়ুন

৩৫. অধ্যায়ঃ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] -এর আল্লাহ সম্বন্ধে জ্ঞান এবং তাঁকে অত্যধিক ভয় করা

৬০০৩

আয়েশাহ [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, একটি কাজ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] করিলেন এবং এটি জারি রাখলেন। এ খবর তাহাঁর কিছু সহাবার নিকট পৌঁছলে তারা এ কাজটি পছন্দ করিলেন না এবং এ থেকে বিরত রইলেন। এ কথা রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] জানতে পেরে দাঁড়িয়ে বক্তৃতা দিলেন। তিনি বললেনঃ জনগণের কী হলো, তাদের নিকট এ খবর পৌঁছেছে যে, একটা কাজে আমি সম্মতি দিয়েছি, তারপরও তারা একে নিকৃষ্ট মনে করছে এবং এ থেকে বিরত থাকছে। আল্লাহর শপথ! আল্লাহ সম্পর্কে আমি সবচেয়ে বেশী জানি এবং আল্লাহকে তাদের তুলনায় অত্যধিক ভয় করি। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৮৯৮, ইসলামিক সেন্টার- ৫৯৩৫]

৬০০৪

আমাশ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণীতঃ

এ সূত্রে জারীর [রাদি.]-এর হাদীস রিওয়ায়াত করিয়াছেন। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৮৯৯, ইসলামিক সেন্টার- ৫৯৩৬]

৬০০৫

আয়েশাহ [রাদি.] হইতে বর্ণীতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] একটি কাজকে জায়িয করিলেন, অন্য কিছু লোক তা খারাপ মনে করিল। এ কথা নবী [সাঃআঃ]-এর নিকট পৌঁছলে তিনি রেগে গেলেন; এমনকি তাহাঁর মুখায়বে রাগ প্রকাশ পেল। তখন তিনি বললেনঃ লোকদের কী হলো যে, আমার জন্য বৈধ একটা কাজে তারা আগ্রহ প্রকাশ করছে না। আল্লাহর শপথ! আমি অবশ্যই আল্লাহ সম্পর্কে তাদের চেয়ে অধিক জানি এবং তাঁকে অধিক ভয় করি। [ইসলামিক ফাউন্ডেশন- ৫৯০০, ইসলামিক সেন্টার- ৫৯৩৭]

About halalbajar.com

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Check Also

মহান আল্লাহর বাণী : “তারা দুটি বিবদমান পক্ষ তাদের প্রতিপালক সম্পর্কে বাক-বিতণ্ডা করে”

মহান আল্লাহর বাণী : “তারা দুটি বিবদমান পক্ষ তাদের প্রতিপালক সম্পর্কে বাক-বিতণ্ডা করে” মহান আল্লাহর …

Leave a Reply

%d bloggers like this: