আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া ও আশ্রয় গ্রহণ করা

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া >> সুনানে নাসাই শরিফের মুল সুচিপত্র দেখুন

পর্বঃ ৫১, আল্লাহর আশ্রয় গ্রহণ করা, হাদীস (৫৪২৮ – ৫৫৩৯)

১.পরিচ্ছেদঃ আল্লাহর আশ্রয় গ্রহণ করা
২.পরিচ্ছেদঃ যে হৃদয় ভয় করে না, তা হইতে আল্লাহর পানাহ চাওয়া
৩.পরিচ্ছেদঃ অন্তরের ফিত্‌না থেকে আল্লাহর আশ্রয় প্রার্থনা
৪.পরিচ্ছেদঃ কান ও চোখের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫.পরিচ্ছেদঃ কাপুরুষতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৬.পরিচ্ছেদঃ কৃপণতা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৭.পরিচ্ছেদঃ দুশ্চিন্তা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৮.পরিচ্ছেদঃ দুঃখ-কষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৯.পরিচ্ছেদঃ দেনা এবং পাপ হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১০.পরিচ্ছেদঃ চোখ ও কানের অপকারিতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১১.পরিচ্ছেদঃ চোখের অপকারিতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১২.পরিচ্ছেদঃ অলসতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৩.পরিচ্ছেদঃ অপারগতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৪.পরিচ্ছেদঃ অপমান ও লাঞ্ছনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৫.পরিচ্ছেদঃ অপ্রতুলতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৬.পরিচ্ছেদঃ অভাব-অনটন থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৭.পরিচ্ছেদঃ কবরের ফিতনা-অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৮.পরিচ্ছেদঃ অতৃপ্ত প্রবৃত্তি থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
১৯.পরিচ্ছেদঃ ক্ষুধা থেকে আশ্রয় প্রার্থন করা
২০.পরিচ্ছেদঃ খিয়ানত হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২১.পরিচ্ছেদঃ শত্রুতা, নিফাক ও মন্দ চরিত্র থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২২.পরিচ্ছেদঃ ঋণের বোঝা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২৩.পরিচ্ছেদঃ ঋণের প্রাবল্য থেকে আশ্রয় চাওয়া
২৪.পরিচ্ছেদঃ দেনার চাপ হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২৫.পরিচ্ছেদঃ ঐশ্বর্যের অনিষ্টতা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২৬.পরিচ্ছেদঃ দুনিয়ার ফিত্‌না থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২৭.পরিচ্ছেদঃ পুরুষাঙ্গের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
২৮.পরিচ্ছেদঃ কুফরের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
প্রার্থনা করা
২৯.পরিচ্ছেদঃ শত্রুর আগ্রাসন হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩০.পরিচ্ছেদঃ শত্রুর হাসির পাত্র হওয়া থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩১.পরিচ্ছেদঃ চরম বার্ধক্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩২.পরিচ্ছেদঃ দুর্ভাগ্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৩.পরিচ্ছেদঃ অপমৃত্যু হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৪.পরিচ্ছেদঃ পাগলামী থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৫.পরিচ্ছেদঃ জিনদের কুদৃষ্টি হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৬.পরিচ্ছেদঃ বার্ধক্যের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৭.পরিচ্ছেদঃ অতি বার্ধক্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৮.পরিচ্ছেদঃ মন্দ জীবন থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৩৯.পরিচ্ছেদঃ লাভের পর ক্ষতি থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪০.পরিচ্ছেদঃ অত্যাচারিত ব্যক্তির বদ-দুআ থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪১.পরিচ্ছেদঃ দুঃখজনক প্রত্যাবর্তন থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪২.পরিচ্ছেদঃ মন্দ পড়শী থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৩.পরিচ্ছেদঃ লোকের আধিপত্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৪.পরিচ্ছেদঃ দাজ্জালের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৫.পরিচ্ছেদঃ দোযখের আযাব ও দাজ্জালের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৬.পরিচ্ছেদঃ মানুষ শয়তানের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৭.পরিচ্ছেদঃ জীবিতকালের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৮.পরিচ্ছেদঃ মৃত্যুর ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৪৯.পরিচ্ছেদঃ কবরের আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫০.পরিচ্ছেদঃ কবরের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫১.পরিচ্ছেদঃ আল্লাহর আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫২.পরিচ্ছেদঃ জাহান্নামের আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫৩.পরিচ্ছেদঃ জাহান্নামের আগুনের উত্তাপ থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য প্রার্থনা করা
৫৪.পরিচ্ছেদঃ কৃতকর্মের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫৫.পরিচ্ছেদঃ আমলের অনিষ্ট হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫৬.পরিচ্ছেদঃ যা করা হয়নি তার অনিষ্ট হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫৭.পরিচ্ছেদঃ মাটিতে ধসে যাওয়া হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫৮.পরিচ্ছেদঃ উঁচু স্থান হইতে পড়া এবং ঘরচাপা পড়া হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৫৯.পরিচ্ছেদঃ আল্লাহর অসন্তুষ্টি হইতে আল্লাহর সন্তুষ্টির আশ্রয় গ্রহণ
৬০.পরিচ্ছেদঃ কিয়ামত দিবসের সংকীর্ণাবস্থা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা
৬১.পরিচ্ছেদঃ যে দুআ শ্রবণ করা হয় না, তা থেকে আশ্রয় চাওয়া
৬২.পরিচ্ছেদঃ যে দুআ কবূল হয় না, তা থেকে পানাহ চাওয়া

১.পরিচ্ছেদঃ আল্লাহর আশ্রয় গ্রহণ করা

৫৪২৮ মুআয ইবনি আবদুল্লাহ্‌ তাহাঁর পিতার মাধ্যমে হইতে বর্ণিতঃ

একবার কিছু বৃষ্টিপাতের পর চতুর্দিক অন্ধকার হইয়া গেল। আমরা আমাদের নিয়ে নামাজ আদায়ের জন্য রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর অপেক্ষা করছিলাম। তারপর তিনি এমন কিছু বললেনঃ যাহার মর্ম হলো, পরে তিনি আমাদের নিয়ে নামাজ আদায়ার্থে বের হলেন। তিনি বললেনঃ বল! আমি বললামঃ কি বলবো? তিনি বললেনঃ

কুল হুয়াল্লাহু আহাদ, কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক, কুল আউযু বিরাব্বিন্নাস

এবং সকাল-সন্ধ্যায় তিনবার করে। সকল বিপদাপদে এটাই তোমার জন্য যথেষ্ট।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান হাদীস

৫৪২৯ আবদুল্লাহ ইবনি খুবায়ব [রাঃআঃ] তাহাঁর পিতার সূত্রে হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি মক্কার পথে রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর সঙ্গে ছিলাম। একবার আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -কে নির্জনে পেয়ে তাহাঁর নিকট গেলাম। তিনি বললেনঃ বল। আমি বললামঃ কি বলবো? তিনি বললেনঃ বল, আমি বললাম কি বলব? তিনি বলিলেন, বল, কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক। তিনি তা শেষ করিলেন। এরপর বললেনঃ বল, কুল আউযু বিরাব্বিন্নাস। এই সূরা শেষ করে তিনি বললেনঃ লোকেরা এ দুটির চেয়ে উত্তম আশ্রয় গ্রহণ করিতে পারে না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩০ উকবা ইবনি আমির জুহানী [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি এক জিহাদের সফরে রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর উটনী টানছিলাম, তিনি বললেনঃ হে উক্‌বা! বল! আমি সেদিকে লক্ষ্য করলাম। তিনি আবার বলিলেন, বল। আমি সেদিকে লক্ষ্য করলাম। তিনি তৃতীয়বার একই কথা বলিলেন। আমি বললাম, কী বলব? তিনি বললেনঃ বল, কুল হুয়াল্লাহু আহাদ। তিনি সূরা শেষ করিলেন। এরপর তিনি কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক পাঠ করলে আমি তাহাঁর সঙ্গে পাঠ করলাম। তিনি এটিও শেষ করিলেন। তারপর বলিলেন, কুল আউযু বিরাব্বিন্নাস, তাহাঁর সঙ্গে আমিও তা পড়লাম। তিনি এটিও শেষ করিলেন। তারপর বললেনঃ এই সূরাগুলো হইতে উত্তম কোন আশ্রয় কেউ গ্রহণ করে না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩১ উকবা ইবনি আমির জুহানী [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] আমাকে বললেনঃ বল। আমি বললামঃ কি বলবো? তিনি বললেনঃ বল, কুল হুয়াল্লাহু আহাদ এবং কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক এবং কুল আউযু বিরাব্বিন্নাস। পরে রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] তা পাঠ করিলেন এবং বললেনঃ কোন ব্যক্তি এই সূরাগুলোর ন্যায় অন্য কিছুর আশ্রয় গ্রহণ করে না করেনি। কিংবা বলিলেন, কোন লোক এর মত কিছুর আশ্রয় গ্রহণ করিতে পারে না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩২ ইবনি আবিস জুহানী [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

একদা রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] তাকে বললেনঃ হে ইবনি আবিস! যা দ্বারা লোক আল্লাহর আশ্রয় গ্রহণ করে থাকে, এদের মধ্যে যা উত্তম, তা কি আমি তোমাকে বলবো না? অথবা তিনি বললেনঃ আমি কি তোমাকে অবহিত করব না? সে বললোঃ হ্যাঁ, ইয়া রসূলুল্লাহ্! তিনি বললেনঃ তা হলো, কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক এবং কুল আউযু বিরাব্বিন্নাস– এ দুটি সূরা।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩৩ উকবা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -কে একটি সাদা খচ্চর হাদিয়া দেওয়া হলে তিনি তার উপর সওয়ার হলেন, আর উকবা [রাঃআঃ] তা টেনে নিয়ে চললেন। এমন সময় রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] উকবা [রাঃআঃ] -কে বললেনঃ হে উকবা, পড়! তিনি বললেনঃ কি পড়বো? তিনি বললেনঃ পড়, কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক। তিনি তা আবারও বলিলেন, আমি তা পড়লাম। তিনি বুঝতে পারলেন, আমি এতে খুব বেশি খুশি হইনি। তিনি বললেনঃ হয়তো তুমি এর মর্যাদা বুঝতে পারনি। আমি এর মত সূরা আর পাইনি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩৪ উকবা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -কে সূরা নাস ও ফালাক সম্বন্ধে জিজ্ঞাসা করলে, তিনি এই দুটি সূরা দ্বারাই আমাদের ফজরের সালাতে ঈমামতি করেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩৫ উকবা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

একদা রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] ফজরের সালাতে এ সূরা দুটি তিলাওয়াত করেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩৬ উকবা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

আমি সফরে রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর সওয়ারী টানছিলাম, এমন সময় তিনি বললেনঃ হে উকবা! আমি কি তোমাকে পঠিত সর্বোত্তম দুটি সূরা শিক্ষা দেব না? তিনি আমাকে শিক্ষা দিলেন কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক এবং কুল আউযু বিরাব্বিন্নাস। তিনি দেখলেন, আমি এতে অধিক সন্তুষ্ট হইনি। এরপর যখন তিনি ফজরের সালাতে বের হলেন, তখন তিনি এই দুটি সূরা দিয়েই ফজরের নামাজ আদায় করিলেন। রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] নামাজ শেষ করে আমার প্রতি লক্ষ্য করে বললেনঃ হে উক্‌বা! কেমন দেখলে?

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৩৭ উক্‌বা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি এক রাস্তায় রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর সওয়ারীর রশি টেনে নিচ্ছিলাম। এমন সময় তিনি বললেনঃ হে উক্‌বা! তুমি সওয়ার হইবে না? আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর মর্যাদার প্রতি লক্ষ্য তাহাঁর বাহনে আরোহণ সমীচীন মনে করলাম না। কিছুক্ষণ পর তিনি আবার বললেনঃ হে উক্‌বা! তুমি কি সওয়ার হইবে না? তখন আমি আশংকাবোধ করলাম যে, আদেশ অমান্য করার অপরাধ হইয়া যায় কিনা। সুতরাং তিনি অবতরণ করলে আমি সওয়ার হলাম। কিছুক্ষণ পরে আমি নিচে নামলাম, আর তিনি সওয়ার হলেন। এরপর তিনি বললেনঃ মানুষ যা তিলাওয়াত করে, এমন দুটি উত্তম সূরা আমি কি তোমাকে শিক্ষা দিব না? এরপর রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] আমাকে দুটি সূরা- কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক ও সূরা নাস শিক্ষা দিলেন। এমন সময় সালাতের ইকামত বলা হলো এবং তিনি অগ্রসর হইয়া এ দুটি সূরাই পড়লেন, পরে তিনি আমার নিকট দিয়ে যাওয়ার সময় বললেনঃ হে উক্‌বা! কিরূপ দেখলে? তুমি প্রত্যেক শয়নে ও জাগরণে এ সূরা দুটি পাঠ করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান হাদীস

৫৪৩৮ উক্‌বা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর সাথে ছিলাম। তিনি বললেনঃ হে উক্‌বা! বল। আমি বললামঃ ইয়া রাসূলাল্লাহ্‌! কি বলবো? তিনি কিছুক্ষন চুপ থাকলেন। তারপর বললেনঃ হে উক্‌বা! বল। আমি বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ্! আমি কি বলবো? তিনি আবার চুপ থাকলেন। আমি বললামঃ হে আল্লাহ! তাঁকে আমার দিকে ফিরিয়ে দিন। তারপর তিনি বললেনঃ হে উকবা! বল। আমি বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] কি বলবো? এবার তিনি বললেনঃ বল, কুল আউযু বিরাব্বিল ফালাক, আমি তা পড়ে শেষ করলাম। এরপর রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] বললেনঃ বল। আমি বললামঃ কি বলবো? তিনি বললেনঃ বল, কুল আউযু বিরাব্বন্নাস। আমি তা পাঠ করলাম। এরপর তিনি বললেনঃ কোন প্রার্থনাকারী এর মত কিছু দ্বারা প্রার্থনা করেনি এবং কোন আশ্রয়প্রার্থী এর মত অন্য কিছু দ্বারা আশ্রয় গ্রহণ করেনি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

৫৪৩৯ উক্‌বা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর নিকট এসে দেখলাম, তিনি বাহনে আরোহণ করে আছেন। আমি তাহাঁর পায়ে আমার হাত রেখে বললামঃ আমাকে সূরা হুদ শিক্ষা দিন, আমাকে সূরা ইউসূফ শিক্ষা দিন। তিনি বললেনঃ তুমি আল্লাহর নিকট অতি প্রিয় সূরা ফালাক অপেক্ষা শ্রেষ্ঠ কোন সূরা পড়বে না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৪০ উক্‌বা ইবনি আমির [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ আমার উপর কয়েকটি আয়াত নাযিল হইয়াছে, যাহার মত আর কোন আয়াত দেখা যায় না, আর তা হলো কুল আঊযুবি রাব্বিল ফালাক শেষ পর্যন্ত এবং কুল আঊযুবিরাব্বিন নাস শেষ পর্যন্ত।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৪১ জাবির ইবনি আবদুল্লাহ্‌ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] আমাকে বলেনঃ হে জাবির! পড়। আমি বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ্! আমার মাতাপিতা আপনার উপর কুরবান হোক, আমি কি পড়বো? তিনি বললেনঃ তুমি পড়, কুল আঊযু বিরাব্বিল ফালাক, কুল আঊযু বিরাব্বিন্নাস তখন আমি উভয় সূরা তিলাওয়াত করলাম। তিনি বললেনঃ আরও তিলাওয়াত কর, এর মত আর কোন সূরা তিলাওয়াত করিবে না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

২.পরিচ্ছেদঃ যে হৃদয় ভয় করে না, তা হইতে আল্লাহর পানাহ চাওয়া

৫৪৪২. আবদুল্লাহ ইবনি আমর [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] চারটি বস্তু হইতে আল্লাহর আশ্রয় কামনা করিতেনঃ অনুপকারী ইল্‌ম হইতে, এমন অন্তর হইতে- যা আল্লাহর ভয়ে ভীত-কম্পিত হয় না, এমন দুআ হইতে, যা কবূল হয় না, আর ঐ প্রবৃত্তি হইতে যা পরিতৃপ্ত হয় না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩..পরিচ্ছেদঃ অন্তরের ফিত্‌না থেকে আল্লাহর আশ্রয় প্রার্থনা

৫৪৪৩. উমার [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] আশ্রয় কামনা করিতেন কাপুরুষতা, কৃপণতা, অন্তরের ফিত্‌না এবং কবরের আযাব হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৪.পরিচ্ছেদঃ কান ও চোখের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৪৪. শাকাল ইবনি হুমায়দ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর নিকট এসে বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ্! আমাকে এমন এক আশ্রয় প্রার্থনার দুআ শিক্ষা দিন, আমি যা দ্বারা আল্লাহর আশ্রয় প্রার্থনা করিতে পারি। তখন তিনি আমার হাত ধরে বললেনঃ তুমি বল,

أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ سَمْعِي، وَشَرِّ بَصَرِي، وَشَرِّ لِسَانِي

আঊযুবিকা মিন্ শাররি সাম্ঈ, ওয়া শাররি বাসারী, ওয়া শাররি লিসা-নী

হে আল্লাহ! আমি আমার কান, চক্ষু, জিহ্‌বা, অন্তর এবং বীর্যের অনিষ্ট হইতে আপনার আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

রাবী বলেনঃ আমি তা মুখস্থ করে নিয়েছি। সাঈদ [রাঃআঃ] বলেনঃ হাদিসের মনি শব্দের অর্থ- বীর্য।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫.পরিচ্ছেদঃ কাপুরুষতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৪৫. মুসআব ইবনি সাদ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] তাহাঁর পিতার সূত্রে হইতে বর্ণিতঃ

তিনি আমাদেরকে পাঁচটি কথা শিক্ষা দিতেন এবং তিনি বলিতেনঃ রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] এগুলো দ্বারা দুআ করিতেন এবং তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْبُخْلِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أُرَدَّ إِلَى أَرْذَلِ الْعُمُرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الدُّنْيَا، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল বুখলি, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল জুবনি , ওয়া আঊযুবিকা আন উরাদ্দা ইলা আরজালিল উমুর, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিতনাতিত দুনিয়া ওয়া আঊযুবিকা মিন আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কৃপণতা থেকে, আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কাপুরুষতা থেকে, আমি আরো আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি জীবনের নিকৃষ্টতম অংশ [অতি বার্ধক্য] থেকে এবং আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি দুনিয়ার ফিত্‌না থেকে এবং আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৬.পরিচ্ছেদঃ কৃপণতা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৪৬. ইবনি মাসউদ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] পাঁচটি বিষয় হইতে আল্লাহর আশ্রয় প্রার্থনা করিতেনঃ কৃপণতা হইতে, কাপুরুষতা হইতে, মন্দ আয়ু হইতে, অন্তরের ফিতনা এবং কবরের আযাব হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৪৭. আমর ইবনি মায়মূন আওদী [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন সাদ [রাঃআঃ] তাহাঁর সন্তানদেরকে এই বাক্যসমূহ শিক্ষা দিতেন, যেমন শিক্ষক ছাত্রদেরকে শিক্ষা দিয়ে থাকেন। তিনি বলেনঃ রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] এই দুআগুলো নামাযের পর পাঠ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْبُخْلِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أُرَدَّ إِلَى أَرْذَلِ الْعُمُرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الدُّنْيَا، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল বুখলি, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল জুবনি , ওয়া আঊযুবিকা আন উরাদ্দা ইলা আরজালিল উমুর, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিতনাতিত দুনিয়া ওয়া আঊযুবিকা মিন আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি কাপুরুষতা, কার্পণ্য, চরম বার্ধক্য, দুনিয়ার ফিতনা এবং কবরের আযাব থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

রাবী বলেনঃ আমি এই হাদীস মুসআব [রাঃআঃ] -এর নিকট বর্ণনা করলে তিনি এর সত্যয়ন করেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৪৮. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

ইয়া আল্লাহ! আমি অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, চরম বার্ধক্য এবং জীবন ও মরণের ফিতনা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْعَجْزِ، وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ، وَالْهَرَمِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ، وَفِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল আজ্যি ওয়াল কাসালি ওয়াল বুখলি ওয়াল হারামি ওয়া আযা-বিল কব্রি ওয়া ফিতনাতিল মাহ্ইয়া- ওয়াল মামা-ত”

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৭.পরিচ্ছেদঃ দুশ্চিন্তা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৪৯. আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর কয়েকটি নির্দিষ্ট দুআ ছিল, যা তিনি কোন সময় ছাড়তেন না। তা এই যে, তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَمِّ وَالْحَزَنِ، وَالْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَغَلَبَةِ الرِّجَالِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল হাজানি, ওয়াল আজ্যি ওয়াল কাসালি ওয়াল বুখ্লি, ওয়াল জুব্নি ওয়া গালাবারতিল রিজালা

হে আল্লাহ! আমি দুশ্চিন্তা, অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, এবং লোকের আগ্রাসন হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ লিগাইরিহি

৫৪৫০. আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -এর কয়েকটি দুআ ছিল, যা তিনি কখনও ত্যাগ করিতেন না।

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَمِّ وَالْحَزَنِ، وَالْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَالدَّيْنِ وَغَلَبَةِ الرِّجَالِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল হাম্মি ওয়াল হাজানি ওয়াল আজ্যি ওয়াল কাসালি ওয়াল বুখলি ওয়াল জুব্নি ওয়াল্লাজিনা ওয়া গালাবারতিল রিজালা

হে আল্লাহ! আমি দুশ্চিন্তা, ভয়, অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, ঋণ এবং লোকের আগ্রাসন হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৫১. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ وَالْهَرَمِ، وَالْجُبْنِ وَالْبُخْلِ، وَفِتْنَةِ الدَّجَّالِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কাসালি ,ওয়াল হারামি ওয়াল জুবনি ওয়াল বুখলি ওয়াল ফিতনাতিত দাজ্জালি ওয়া আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার কাছে অলসতা, চরম বার্ধক্য, কাপুরুষতা, কৃপণতা, দাজ্জালের ফিতনা এবং কবরের আযাব থেকে পানাহ্‌ চাচ্ছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৫২. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْهَرَمِ وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَمِنْ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল আজ্যি ওয়াল কাসালি ওয়াল হারামি ওয়াল বুখলি ওয়া আঊযুবিকা মিন আযা-বিল কব্রি ওয়া মিন ফিতনাতিল মাহ্ইয়া- ওয়াল মামা-ত

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট অপারগতা, অলসতা, চরম বার্ধক্য, কৃপণতা এবং কাপুরুষতা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করছি। আমি আপনার কাছে কবরের আযাব এবং জীবন-মৃত্যুর ফিতনা থেকেও আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৮.পরিচ্ছেদঃ দুঃখ-কষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৫৩. আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] দুআর সময় বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَمِّ وَالْحَزَنِ، وَالْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَضَلَعِ الدَّيْنِ، وَغَلَبَةِ الرِّجَالِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল হাম্মি ওয়াল হাজানি ওয়াল আজ্যি ওয়াল কাসালি ওয়াল বুখলি ওয়াল জুব্নি ওয়া দালাইদ্দাইন ওয়া গালাবারতিল রিজালা

হে আল্লাহ! আমি দুশ্চিন্তা, দুঃখ, অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, ঋণের বোঝা এবং লোকের আগ্রাসন হইতে আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ লিগাইরিহি

৯.পরিচ্ছেদঃ দেনা এবং পাপ হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৫৪. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] অধিকাংশ সময় ঋণ এবং পাপ হইতে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন। আমি বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ্! আপনি কত বেশিই না ঋণ হইতে আল্লাহর আশ্রয় প্রার্থনা করে থাকেন! তখন তিনি বললেনঃ যে ব্যক্তি ঋণী হয়, সে যখন কথা বলে, মিথ্যা বলে এবং যখন ওয়াদা করে, তা ভঙ্গ করে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১০.পরিচ্ছেদঃ চোখ ও কানের অপকারিতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৫৫. শাকাল ইবনি হুমায়দ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

একদা আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] –এর নিকট উপস্থিত হইয়া বললামঃ হে আল্লাহর নাবী! আমাকে এমন আশ্রয়ের দুআ শিখিয়ে দিন, যা দ্বারা আমি আশ্রয় প্রার্থনা করিতে পারি। তিনি আমার হাত ধরে বললেনঃ তুমি বল,

 أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ سَمْعِي، وَشَرِّ بَصَرِي، وَشَرِّ لِسَانِي، وَشَرِّ قَلْبِي، وَشَرِّ مَنِيِّي

আঊযুবিকা মিন্ শাররি সাম্ঈ, ওয়া শাররি বাসারী, ওয়া শাররি লিসা-নী ওয়া শাররি কলবী ওয়া শাররি মানিয়্যি

আমি আমার কান, চোখ, জিহ্‌বা, অন্তর এবং বীর্যের অপকারিতা হইতে আল্লাহর আশ্রয় চাচ্ছি।

রাবী বলেনঃ আমি তা মুখস্থ করে নিলাম। সাদ [রাঃআঃ] বলেনঃ হাদিসের বর্ণিত মনী অর্থ বীর্য।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১১.পরিচ্ছেদঃ চোখের অপকারিতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৫৬. শাকাল ইবনি হুমায়দ [রাঃআঃ] তাহাঁর পিতা থেকে হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ! আমাকে কিছু দুআ শিখিয়ে দিন, যা দ্বারা আমি লাভবান হইতে পারি। তিনি বললেনঃ তুমি বল,

اللَّهُمَّ عَافِنِي مِنْ شَرِّ سَمْعِي وَبَصَرِي، وَلِسَانِي وَقَلْبِي، وَمِنْ شَرِّ مَنِيِّي

আল্ল-হুম্মা আফিনি মিন্ শাররি সাম্ঈ, ওয়া বাসারী, ওয়া লিসা-নী ওয়া কলবী ওয়া মিন্ শাররি মানিয়্যি

হে আল্লাহ! আমাকে কান, চোখ, জিহবা, অন্তর এবং পুরুষাঙ্গের অপকারিতা হইতে রক্ষা করুন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১২.পরিচ্ছেদঃ অলসতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৫৭. হুমায়দ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] -এর নিকট কবর আযাব এবং দাজ্জাল সম্বন্ধে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ وَالْهَرَمِ، وَالْجُبْنِ وَالْبُخْلِ، وَفِتْنَةِ الدَّجَّالِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কাসালি ,ওয়াল হারামি ওয়াল জুবনি ওয়াল বুখলি ওয়া ফিতনাতিত দাজ্জালি ওয়া আযা-বিল কবরি

ইয়া আল্লাহ! আমি অলসতা, চরম বার্ধক্য, কাপুরুষতা, কৃপণতা, দাজ্জালের ফিতনা এবং কবর আযাব হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১৩.পরিচ্ছেদঃ অপারগতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৫৮. যায়দ ইবনি আরকাম [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি তোমাদেরকে তা-ই শিক্ষা দেব, যা রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] আমাদেরকে শিক্ষা দিতেন, তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَالْهَرَمِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ، اللَّهُمَّ آتِ نَفْسِي تَقْوَاهَا، وَزَكِّهَا أَنْتَ خَيْرُ مَنْ زَكَّاهَا، أَنْتَ وَلِيُّهَا وَمَوْلَاهَا، اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ قَلْبٍ لَا يَخْشَعُ، وَمِنْ نَفْسٍ لَا تَشْبَعُ، وَعِلْمٍ لَا يَنْفَعُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল আজ্যি কাসালি, ওয়াল বুখলি, ওয়াল জুবনি, ওয়াল হারামি ওয়া আযা-বিল কবরি। আল্ল-হুম্মা আ-তি নাফসী তাক্‌ওয়া-হা ওয়াযাক্কিহা-আন্‌তা খইরু মান্‌ যাক্‌কা-হা আন্‌তা ওয়ালী ইউহা- ওয়া মাওলা-হা-, আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন কালবিন্‌ লা- ইয়াখ্‌শাউ ওয়ামিন নাফ্‌সিন লা- তাশ্‌বাউ ওয়া ইলমিন ল তানফাউ

হে আল্লাহ! আমি অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, চরম বার্ধক্য এবং কবর আযাব হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। হে আল্লাহ!

আমার আত্মাকে পরহেযগারী দান করুন এবং একে মন্দ কার্য হইতে পবিত্র করুন; আপনি অতি উত্তম পবিত্রকারী এবং আপনিই এর মালিক। হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করি ঐ অন্তর হইতে যা ভীত না হয়, আর ঐ প্রবৃত্তি থেকে, যা তৃপ্ত হয় না, আর এমন ইলম হইতে, যা উপকার করে না এবং এমন দুআ থেকে, যা কবূল হয় না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৫৯. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَالْهَرَمِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ، وَفِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল আজ্যি কাসালি, ওয়াল বুখলি, ওয়াল জুবনি, ওয়াল হারামি ওয়া আযা-বিল কবরি। ওয়া ফিতনাতিল মাহ্ইয়া ওয়াল মামা-ত

হে আল্লাহ! আমি অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, চরম বার্ধক্য, কবর আযাব এবং জীবন-মরণের ফিতনা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১৪.পরিচ্ছেদঃ অপমান ও লাঞ্ছনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৬০. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْفَقْرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْقِلَّةِ وَالذِّلَّةِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَظْلِمَ أَوْ أُظْلَمَ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল ফাকরি, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল কিল্লাতি ওয়ায্ যিল্লাতি ওয়া আঊযুবিকা মিন্ আন্ আযলিমা আও উযলামা

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করি দারিদ্র্য হইতে, আমি আরও আশ্রয় প্রার্থনা করি অপ্রতুলতা এবং অপমান ও লাঞ্ছনা থেকে, আর আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করি আমি যেন কারো উপর অত্যাচার না করি অথবা আমি যেন অত্যাচারিত না হই।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৬১. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলছেনঃ তোমরা আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে অভাব-অনটন, অপ্রতুলতা, অপমান থেকে এবং কারো উপর অত্যাচার করা কিংবা কারো দ্বারা অত্যাচারিত হওয়া থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৬২. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْقِلَّةِ، وَالْفَقْرِ، وَالذِّلَّةِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَظْلِمَ أَوْ أُظْلَمَ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কিল্লাতি ওয়াল ফাকরি,ওয়ায্ যিল্লাতি ওয়া আঊযুবিকা মিন্ আন্ আযলিমা আও উযলামা

হে আল্লাহ! আমি আপনার কাছে স্বল্পতা, অভাব-অনটন, লাঞ্ছনা থেকে আশ্রয় চাই। আমি অত্যাচার করা ও অত্যাচারিত হওয়া থেকে আপনার পানাহ চাই।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১৫.পরিচ্ছেদঃ অপ্রতুলতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৬৩. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রাসূলূল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ তোমরা আল্লাহর নিকট অভাব-অনটন, অপ্রতুলতা, লাঞ্ছনা এবং অত্যাচার করা ও অত্যাচারিত হওয়া থেকে আশ্রয় প্রার্থনা কর।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

১৬.পরিচ্ছেদঃ অভাব-অনটন থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৬৪. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ তোমরা আল্লাহর নিকট অভাব-অনটন, অপ্রতুলতা, লাঞ্ছনা এবং অন্যের উপর অত্যাচার করা এবং অত্যাচারিত হওয়া থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৬৫. মুসলিম [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

তাহাঁর পিতাকে প্রত্যেক নামাজের পর বলিতে শুনতেন যে,

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكُفْرِ وَالْفَقْرِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কুফরি ওয়াল ফাকরি ওয়া আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কুফরী, অভাব এবং কবরের আযাব হইতে।

আমিও এ দ্বারা দুআ করিতে আরম্ভ করলাম। তখন আমার পিতা বললেনঃ হে প্রিয় বৎস! এই দুআ কোথা থেকে শিখলে? আমি বললামঃ হে পিতা! আমি আপনাকে এই দুআ করিতে শুনিয়াছি প্রত্যেক নামাজের পর। আমি তা আপনার নিকটেই শিখেছি। তিনি বললেনঃ বেটা, এগুলোকে আঁকড়ে ধরবে। কেননা, নাবী [সাঃআঃ] প্রত্যেক নামাজের পর এগুলো দ্বারা দুআ করিতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১৭.পরিচ্ছেদঃ কবরের ফিতনা-অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৬৬. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] প্রায়ই এই দুআ পাঠ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ النَّارِ، وَعَذَابِ النَّارِ، وَفِتْنَةِ الْقَبْرِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ، وَشَرِّ فِتْنَةِ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ، وَشَرِّ فِتْنَةِ الْفَقْرِ، وَشَرِّ فِتْنَةِ الْغِنَى، اللَّهُمَّ اغْسِلْ خَطَايَايَ بِمَاءِ الثَّلْجِ وَالْبَرَدِ، وَأَنْقِ قَلْبِي مِنَ الْخَطَايَا كَمَا أَنْقَيْتَ الثَّوْبَ الْأَبْيَضَ مِنَ الدَّنَسِ، وَبَاعِدْ بَيْنِي وَبَيْنَ خَطَايَايَ كَمَا بَاعَدْتَ بَيْنَ الْمَشْرِقِ وَالْمَغْرِبِ، اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ وَالْهَرَمِ، وَالْمَأْثَمِ وَالْمَغْرَمِ

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিন ফিত্নাতিন নার ওয়া আজাবিন নার ওয়া ফিতনাতিল কাবরি, ওয়া আজাবিল কাবরি, ওয়া সাররি ফিতনাতিল মাসিহিদ দাজ্জাল, ওয়া মিন সাররি ফিতনাতিল ফাকর, ওয়া সাররি ফিতনাতিল গিনা । আল্লাহুম্মাগছিল খাতায়াইয়া বিমাইস সালজি ওয়াল বারাদ, ওয়া নাক্কি কালবি মিনাল খাতায়া, কামা আনক্কাইতাস সাওবিল আবয়াদা মিনাদ্দানাস, ওয়া বাঈদ বাইনি ওয়া বাইনা খাতায়ায়া কামা বাআদতা বাইনাল মাশরিকি ওয়াল মাগরিব, আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিনাল কাসলি ওয়াল হারামি ওয়াল মাছামে ওয়াল মাগরাম

হে আল্লাহ! আমি দোযখের ফিতনা, দোযখের আযাব, কবরের ফিতনা, কবরের আযাব, দাজ্জালের ফিতনা, অভাব-অনটন এবং ঐশ্বর্যের ফিতনা থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। হে আল্লাহ! আমার পাপসমূহকে বরফ ও শিলার পানি দ্বারা ধূয়ে দিন, আর আমার অন্তরকে পাপ-পঙ্কিলতা হইতে এভাবে পরিষ্কার করে দিন, যেভাবে সাদা কাপড় ময়লা হইতে পরিষ্কার করা হইয়া থাকে। আর আমাকে পাপ হইতে এত দূরে রাখুন, যেমন পূর্ব ও পশ্চিমের মধ্যে দূরত্ব রেখেছেন। হে আল্লাহ! আমি অলসতা, অতি বার্ধক্য, পাপ এবং ঋণগ্রস্ত হওয়া থেকে আপনার আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১৮.পরিচ্ছেদঃ অতৃপ্ত প্রবৃত্তি থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৬৭. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْأَرْبَعِ: مِنْ عِلْمٍ لَا يَنْفَعُ، وَمِنْ قَلْبٍ لَا يَخْشَعُ، وَمِنْ نَفْسٍ لَا تَشْبَعُ، وَمِنْ دُعَاءٍ لَا يُسْمَعُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল আরবায়ি মিনাল ইলমিন লা ইয়ানফাউ, ওয়া মিনাল কালবিন্‌ লা- তাখ্‌শাউ ওয়ামিন নাফ্‌সিন লা- তাশ্‌বাউ ওয়া মিন দুয়াইন লা ইউসমায়ু

হে আল্লাহ! আমি চারটি বস্তু থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছিঃ অনুপকারী ইলম হইতে, ঐ অন্তর হইতে, যাতে ভয় থাকে না; ঐ প্রবৃত্তি হইতে, যা তৃপ্ত হয় না, আর ঐ দুআ হইতে যা কবূল হয় না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

১৯.পরিচ্ছেদঃ ক্ষুধা থেকে আশ্রয় প্রার্থন করা

৫৪৬৮. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُوعِ، فَإِنَّهُ بِئْسَ الضَّجِيعُ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْخِيَانَةِ، فَإِنَّهَا بِئْسَتِ الْبِطَانَةُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা, মিনাল জূই ফাইন্নাহূ বিসায্ যজীউ, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল খিয়া-নাতি ফাইন্নাহা- বিসাতিল বিত্বা-নাহ্

হে আল্লাহ! আমি ক্ষুধা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। কেননা তা অতি নিকৃষ্ট সঙ্গী। আর আমি আমানতে খিয়ানত করা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। কেননা, তা অতি মন্দ চরিত্র।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

২০.পরিচ্ছেদঃ খিয়ানত হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৬৯. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُوعِ، فَإِنَّهُ بِئْسَ الضَّجِيعُ، وَمِنَ الْخِيَانَةِ، فَإِنَّهَا بِئْسَتِ الْبِطَانَةُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা, মিনাল জূই ফাইন্নাহূ বিসায্ যজীউ, ওয়া মিনাল খিয়া-নাতি ফাইন্নাহা- বিসাতিল বিত্বা-নাহ্

হে আল্লাহ! আমি ক্ষুধা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। কেননা তা অতি নিকৃষ্ট সাথী। আর খিয়ানত হইতে, যা অতি মন্দ চরিত্র।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

২১.পরিচ্ছেদঃ শত্রুতা, নিফাক ও মন্দ চরিত্র থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৭০. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] এই দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ عِلْمٍ لَا يَنْفَعُ، وَقَلْبٍ لَا يَخْشَعُ، وَدُعَاءٍ لَا يُسْمَعُ، وَنَفْسٍ لَا تَشْبَعُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল ইলমিন লা ইয়ানফাউ, ওয়া কালবিন্‌ লা- ইয়াখ্‌শাউ ওয়া দুয়াইন লা ইউসমায়ু, ওয়ামিন নাফ্‌সিন লা- তাশ্‌বাউ

হে আল্লাহ! আমি আপনার আশ্রয় প্রার্থনা করছি অনুপকারী বিদ্যা হইতে; এমন অন্তর হইতে, যে ভয় করে না; এমন দুআ হইতে যা কবূল হয় না; আর ঐ প্রবৃত্তি হইতে, যা তৃপ্ত হয় না। তিনি বললেনঃ হে আল্লাহ! আমি এই চারটি বস্তু হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৭১. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الشِّقَاقِ، وَالنِّفَاقِ، وَسُوءِ الْأَخْلَاقِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাশ্ শিকা-কি, ওয়ান্ নিফা-কি ওয়া সূয়িল আখলা-ক

হে আল্লাহ! আমি শত্রুতা, নিফাক এবং মন্দ চরিত্র থেকে আপনার আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

২২.পরিচ্ছেদঃ ঋণের বোঝা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৭২. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] প্রায়ই পাপ এবং ঋণভার হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন। তখন কেউ তাঁকে প্রশ্ন করলোঃ ইয়া রসূলুল্লাহ! আপনি পাপ ও ঋণভার থেকে অত্যধিক আশ্রয় প্রার্থনা করেন? তিনি বললেনঃ কোন লোক যখন করযদার হয়, তখন সে কথা বললে মিথ্যা বলে এবং ওয়াদা করলে খেলাফ করে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

২৩.পরিচ্ছেদঃ দেনা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৭৩. আবু সাইদ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] -কে বলিতে শুনেছিঃ

أَعُوذُ بِاللَّهِ مِنَ الْكُفْرِ، وَالدَّيْنِ

আঊযুবিল্লা-হি মিনাল কুফরি ওয়াদ্দায়নি

আমি কুফর এবং দেনা হইতে আল্লাহর আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

তখন এক ব্যক্তি বললোঃ ইয়া রসূলুল্লাহ! আপনি কি দেনা এবং কুফরকে একই রকম মনে করেন? রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বললেনঃ হ্যাঁ।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৭৪. আবু সাইদ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, নাবী [সাঃআঃ] বলেছেনঃ

আমি আল্লাহর নিকট কুফর এবং দেনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

أَعُوذُ بِاللَّهِ مِنَ الْكُفْرِ وَالدَّيْنِ

আঊযুবিল্লা-হি মিনাল কুফরি ওয়াদ্দায়নি

তখন এক ব্যক্তি বললোঃ আপনি কি কুফর এবং দেনাকে একই রকম মনে করেন? তিনি বললেনঃ হ্যাঁ।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

২৪.পরিচ্ছেদঃ ঋণের প্রাবল্য থেকে আশ্রয় চাওয়া

৫৪৭৫. আবদুল্লাহ ইবনি আমর ইবনি আস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] এই কথাগুলো দ্বারা দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ غَلَبَةِ الدَّيْنِ، وَغَلَبَةِ الْعَدُوِّ، وَشَمَاتَةِ الْأَعْدَاءِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন গালাবাতিদ্দাইন ওয়া গালাবাতিল আদুওয়ি ওয়া ছামাতাহিল আ,দায়ি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট ঋণের প্রাবল্য, শত্রুর প্রাধান্য এবং দুশমনের সন্তুষ্টি থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

২৫.পরিচ্ছেদঃ দেনার চাপ হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৭৬. আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, নাবী [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَمِّ وَالْحَزَنِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَضَلَعِ الدَّيْنِ، وَغَلَبَةِ الرِّجَالِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল হাম্মি ওয়াল হাজানি, ওয়াল কাসালি ওয়াল বুখ্লি, ওয়াল জুব্নি ওয়া দালায়িদ্দাইন ওয়া গালাবারতিল রিজালা

হে আল্লাহ! আমিই দুঃখ-কষ্ট, দুশ্চিন্তা-আলস্য, ভীরুতা, কৃপণতা এবং ঋণের বোঝা থেকে এবং মানুষের আধিপত্য বিস্তার হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

২৬.পরিচ্ছেদঃ ঐশ্বর্যের অনিষ্টতা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৭৭. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَفِتْنَةِ النَّارِ، وَفِتْنَةِ الْقَبْرِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ، وَشَرِّ فِتْنَةِ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ، وَشَرِّ فِتْنَةِ الْغِنَى، وَشَرِّ فِتْنَةِ الْفَقْرِ، اللَّهُمَّ اغْسِلْ خَطَايَايَ بِمَاءِ الثَّلْجِ وَالْبَرَدِ، وَنَقِّ قَلْبِي مِنَ الْخَطَايَا كَمَا نَقَّيْتَ الثَّوْبَ الْأَبْيَضَ مِنَ الدَّنَسِ، اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ، وَالْهَرَمِ، وَالْمَغْرَمِ،

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা আজাবিল কাবরি, ওয়া ফিতনাতিল নার , ওয়া ফিতনাতিল কাবরি, ওয়া আজাবিল কাবরি, ওয়া সাররি ফিতনাতিল মাসিহিদ দাজ্জাল, ওয়া সাররি ফিতনাতিল গিনা । ওয়া সাররি ফিতনাতিল ফাকর, আল্লাহুম্মাগছিল খাতায়াইয়া বিমাইস সালজি ওয়াল বারাদ, ওয়া নাক্কি কালবি মিনাল খাতায়া, কামা নাক্কাইতাস সাওবিল আবয়াদা মিনাদ্দানাস, আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিনাল কাসলি ওয়াল হারামি ওয়াল মাগরাম

হে আল্লাহ! আমি কবরের আযাব, দোযখের ফিতনা, কবরের ফিতনা, কবরের আযাব, মসীহ্‌ দাজ্জালের ফিতনা, সম্পদশালী হওয়ার ফিতনার অনিষ্টতা, অভাবগ্রস্ততার ফিতনার অনিষ্টতা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। হে আল্লাহ! আমার পাপসমূহ বরফ এবং শিলার পানি দ্বারা ধুয়ে দিন, আর আমার অন্তরকে পাপসমূহ হইতে এমন পবিত্র করে দিন, যেমন আপনি সাদা কাপড়কে ময়লা থেকে পবিত্র করে দেন। হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আলস্য, অতি বার্ধক্য, ঋণ এবং গুনাহ হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

২৭.পরিচ্ছেদঃ দুনিয়ার ফিত্‌না থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৭৮. মুসআব ইবনি সাদ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

সাদ [রাঃআঃ] তাকে এ সকল দুআ শিক্ষা দিতেন, আর তিনি তা নাবী [সাঃআঃ] হইতে বর্ণনা করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْبُخْلِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ أَنْ أُرَدَّ إِلَى أَرْذَلِ الْعُمُرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الدُّنْيَا، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল বুখলি, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল জুবনি , ওয়া আঊযুবিকা মিন আন উরাদ্দা ইলা আরজালিল উমুর, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিতনাতিত দুনিয়া ওয়া আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি কৃপণতা হইতে আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি এবং আমি কাপুরুষতা হইতে আপনার আশ্রয় চাচ্ছি, আর অতি বার্ধক্যে পৌঁছা হইতে আপনার আশ্রয় চাচ্ছি এবং দুনিয়ার ফিতনা ও কবরের আযাব থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৭৯. মুসআব ইবনি সাদ এবং আমর ইবনি মায়মূন আওদী [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

সাদ [রাঃআঃ] তাহাঁর সন্তানদেরকে এ সকল দুআ শিক্ষা দিতেন; যেমন শিক্ষক মকতবের ছেলেদেরকে শিক্ষা দিয়ে থাকেন। তিনি বলিতেনঃ রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] প্রত্যেক নামাযের পর এ সকল দুআ দ্বারা আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন। তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْبُخْلِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ أَنْ أُرَدَّ إِلَى أَرْذَلِ الْعُمُرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الدُّنْيَا، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল বুখলি, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল জুবনি , ওয়া আঊযুবিকা মিন আন উরাদ্দা ইলা আরজালিল উমুর, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিতনাতিত দুনিয়া ওয়া আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কৃপণতা, কাপুরুষতা, চরম বার্ধক্যে উপনীত হওয়া, দুনিয়ার ফিতনা এবং কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৮০. উমার [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] কাপুরুষতা, কৃপণতা, নিকৃষ্ট জীবন, অন্তরের ফিতনা এবং কবরের আযাব থেকে আল্লাহ তাআলার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৮১. আমর ইবনি মায়মূন [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি উমার ইবনি খাত্তাব [রাঃআঃ] -কে বলিতে শুনিয়াছি, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] পাঁচটি বিষয় হইতে আশ্রয় চাইতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُبْنِ، وَالْبُخْلِ، وَسُوءِ الْعُمُرِ، وَفِتْنَةِ الصَّدْرِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল জুবনি ওয়ালবুখলি, ওয়া সুয়িল উমুর ওয়া ফিতনাতিশ সাদরি ওয়া আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি- কাপুরুষতা, কৃপণতা, চরম বার্ধক্য, অন্তরের ফিতনা এবং কবরের আযাব হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৮২. আমর ইবনি মায়মূন [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] –এর সাহাবীগণ আমার নিকট বর্ণনা করিয়াছেন যে, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] আশ্রয় চাইতেন কৃপণতা, কাপুরুষতা, অন্তরের ফিতনা এবং কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৫৪৮৩. আমর ইবনি মায়মূন [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] আশ্রয় চাইতেন। হাদীসটি মুরসাল।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ নির্ণীত নয়

২৮.পরিচ্ছেদঃ পুরুষাঙ্গের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৮৪. শাকাল ইবনি হুমায়দ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি বললামঃ ইয়া রসূলুল্লাহ্! আমাকে এমন একটি দুআ শিক্ষা দিন যা দ্বারা আমি উপকৃত হইতে পারি। তিনি বললেনঃ

اللَّهُمَّ عَافِنِي مِنْ شَرِّ سَمْعِي، وَبَصَرِي، وَلِسَانِي، وَقَلْبِي، شَرِّ مَنِيِّي

আল্ল-হুম্মা আফিনি মিন্ শাররি সাম্ঈ, ওয়া বাসারী, ওয়া লিসা-নী ওয়া কলবী শাররি মানিয়্যি

তুমি বল, হে আল্লাহ! আমাকে আমার কান, আমার চোখ, আমার জিহবা, আমার অন্তর এবং আমার বীর্য অর্থাৎ পুরুষাঙ্গের অনিষ্ট থেকে রক্ষা করুন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

২৯.পরিচ্ছেদঃ কুফরের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৮৫. আবু সাইদ খুদরী [রাঃআঃ] রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] থেকে হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكُفْرِ وَالْفَقْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কুফরি ওয়াল ফাকরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কুফর এবং অভাবগ্রস্থতা থেকে।

তখন এক ব্যক্তি জিজ্ঞাসা করলোঃ এ দুটি কি সমপর্যায়ের? তিনি বললেনঃ হ্যাঁ।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৩০.পরিচ্ছেদঃ পথভ্রষ্টতা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৮৬. উম্মে সালামা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] যখন তাহাঁর ঘর থেকে বের হইতেন, তখন তিনি বলিতেনঃ

بِسْمِ اللَّهِ، رَبِّ أَعُوذُ بِكَ مِنْ أَنْ أَزِلَّ أَوْ أَضِلَّ، أَوْ أَظْلِمَ أَوْ أُظْلَمَ، أَوْ أَجْهَلَ أَوْ يُجْهَلَ عَلَيَّ

বিসমিল্লাহি রব্বা আউজু বিকা মিন আন আদিল্লা আও আজিল্লা আও আজলিমা আও উজলামা আও আজহালা আও ইউজহালা আলাইয়া

বিস্‌মিল্লাহ্‌, হে আমার রব! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, পদস্খলিত হওয়া থেকে, রাস্তা ভুলে যাওয়া থেকে, অত্যাচার করা হইতে, অত্যাচারিত হওয়া থেকে, মূর্খতাসুলভ আচরণ থেকে এবং কারও মূর্খতাসুলভ আচরণের শিকার হওয়া থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩১.পরিচ্ছেদঃ শত্রুর আগ্রাসন হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৮৭. আবদুল্লাহ্‌ ইবনি আমর ইবনি আস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] এ সকল কথা দ্বারা দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ غَلَبَةِ الدَّيْنِ، وَغَلَبَةِ الْعَدُوِّ، وَشَمَاتَةِ الْأَعْدَاءِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন গালাবাতিদ্দাইন ওয়া গালাবাতিল আদুওয়ি ওয়া ছামাতাহিল আ,দায়ি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, ঋণের প্রাবল্য, শত্রুদের প্রাধান্য এবং শত্রুর হাসির পাত্র হওয়া থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩২.পরিচ্ছেদঃ শত্রুর হাসির পাত্র হওয়া থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৮৮. আবদুল্লাহ্‌ ইবনি আমর [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] এসব কথা দ্বারা দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ غَلَبَةِ الدَّيْنِ، وَشَمَاتَةِ الْأَعْدَاءِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন গালাবাতিদ্দাইন ওয়া ছামাতাহিল আ,দায়ি

হে আল্লাহ! আপনার নিকট ঋণের প্রাবল্য ও শত্রুর হাসির পাত্র হওয়া থেকে পানাহ চাই।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩৩.পরিচ্ছেদঃ চরম বার্ধক্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৮৯. উসমান ইবনি আবুল আস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] এ সকল দুআ করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ، وَالْهَرَمِ، وَالْجُبْنِ وَالْعَجْزِ، وَمِنْ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কাসালি ,ওয়াল হারামি ওয়াল জুবনি ওয়াল আজ্জি ওয়া মিন ফিতনাতিতল মাহইয়া ওয়াল মামাত

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি অলসতা, চরম বার্ধক্য, কাপুরুষতা, অকর্মণ্যতা এবং জীবন-মরণের ফিত্‌না থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৯০. শুআয়ব [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] তাহাঁর পিতা ও দাদা থেকে হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] -কে বলিতে শুনেছিঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ وَالْهَرَمِ، وَالْمَغْرَمِ، وَالْمَأْثَمِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ النَّارِ

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিন কাসালি ওয়াল হারামি ওয়াল মাগরাম ওয়াল মাছামে ওয়া আউজুবিকা মিন সাররি মাসিহিদ দাজ্জাল ওয়া আউজুবিকা মিন আজাবিল কাবরি ওয়া আউজুবিকা মিন সাররি মাসিহিদ দাজ্জাল ওয়া আউজুবিকা মিন আজাবিন নার

হে আল্লাহ! আমি আলস্য, চরম বার্ধক্য, ঋণ এবং গুনাহ থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি। আর কানা দাজ্জালের অনিষ্ট হইতে আশ্রয় চাচ্ছি এবং আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কবরের আযাব থেকে, আর আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি দোযখের আযাব হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

৩৪.পরিচ্ছেদঃ দুর্ভাগ্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯১. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] তিনটি বিষয় হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন, দুর্ভাগ্য, শত্রুদের হাসির পাত্র হওয়া, মন্দ ভাগ্য ও দুর্বিষহ বিপদ হইতে। রাবী সুফিয়ান [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] বলেনঃ বিষয় মূলত তিনটিই, কিন্তু আমি চারটি উল্লেখ করেছি। কেননা আমি একটি স্মরণ রাখতে পারিনি যে, এ চারটি হইতে কোনটি তিনটির বাইরে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩৫.পরিচ্ছেদঃ অপমৃত্যু হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯২. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] দুর্ভাগ্য, শত্রুর আনন্দ, অপমৃত্যু ও দুর্বিষহ বিপদ থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩৬.পরিচ্ছেদঃ পাগলামী থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯৩. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُنُونِ، وَالْجُذَامِ، وَالْبَرَصِ، وَسَيِّئِ الْأَسْقَامِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আ‘ঊযুবিকা মিনাল জুনূনি ওয়াল জুযা-মি, ওয়াল বারাসি ওয়া সাইয়্যিয়িল আসক্বা-ম

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি পাগলামী, কুষ্ঠ রোগ এবং শ্বেতরোগ এবং অতি মন্দ রোগ ব্যাধি হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩৭.পরিচ্ছেদঃ জিনদের কুদৃষ্টি হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯৪. আবু সাইদ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] জিনের কুদৃষ্টি এবং মানুষের কুদৃষ্টি হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন। পরে যখন সূরা ফালাক এবং সূরা নাস নাযিল হলো, তখন তিনি ঐ সূরাদ্বয় পড়া আরম্ভ করিলেন এবং অন্যগুলো পরিত্যাগ করিলেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩৮.পরিচ্ছেদঃ বার্ধক্যের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯৫. আনাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ্ [সাঃআঃ] এ সকল শব্দ দ্বারা আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন। তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْكَسَلِ، وَالْهَرَمِ، وَالْجُبْنِ وَالْبُخْلِ، وَسُوءِ الْكِبَرِ، وَفِتْنَةِ الدَّجَّالِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল কাসালি ,ওয়াল হারামি ওয়াল জুবনি ওয়াল বুখলি ওয়া সুয়িল কিবার ওয়া ফিতনাতিত দাজ্জালি ওয়া আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি- আলস্য, চরম বার্ধক্য, কাপুরুষতা, কৃপণতা, গর্বের আপদ, দাজ্জালের ফিতনা এবং কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৩৯.পরিচ্ছেদঃ অতি বার্ধক্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯৬. মুসআব ইবনি সাদ [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] তাহাঁর পিতা থেকে হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, তিনি আমাদেরকে ঐ পাঁচ বস্তু শিক্ষা দিতেন, যা দ্বারা রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] দুআ করিতেন। তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْبُخْلِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ أَنْ أُرَدَّ إِلَى أَرْذَلِ الْعُمُرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল বুখলি, ওয়া আঊযুবিকা মিনাল জুবনি , ওয়া আঊযুবিকা মিন আন উরাদ্দা ইলা আরজালিল উমুর, ওয়া আঊযুবিকা মিন আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কার্পণ্য হইতে এবং আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি কাপুরুষতা হইতে, আর আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি অতি বার্ধক্যে উপনীত হওয়া থেকে, আর আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪০.পরিচ্ছেদঃ মন্দ জীবন থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯৭. আমর ইবনি মায়মূন [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

একদা আমি উমার [রাঃআঃ] -এর সাথে হজ্জ আদায় করি এবং তাঁকে এক সমাবেশে বলিতে শুনিঃ জেনে রাখ! রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] পাঁচ বস্তু হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْبُخْلِ وَالْجُبْنِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ سُوءِ الْعُمُرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الصَّدْرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল জুবনি ওয়ালবুখলি, ওয়া আঊযুবিকা মিনসুয়িল উমুর ওয়া আঊযুবিকা মিনফিতনাতিশ সাদরি ওয়া আঊযুবিকা মিন আযা-বিল কবরি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কার্পণ্য, কাপুরুষতা হইতে, আর আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি মন্দ জীবন থেকে, আর আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি অন্তরের ফিতনা হইতে এবং আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৪১.পরিচ্ছেদঃ লাভের পর ক্ষতি থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৪৯৮. আবদুল্লাহ ইবনি সারজিস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] যখন সফর করিতেন, তখন বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ وَعْثَاءِ السَّفَرِ، وَكَآبَةِ الْمُنْقَلَبِ، وَالْحَوْرِ بَعْدَ الْكَوْرِ، وَدَعْوَةِ الْمَظْلُومِ، وَسُوءِ الْمَنْظَرِ فِي الْأَهْلِ وَالْمَالِ

আল্লাহুম্মা ইন্নী আয়ু’যু বিকা মিন ওয়াছা-ইসসাফারি ওয়া কিতাবাতিল মুনকলাবি ওয়াল হাওরে বাদাল কাওরে ওয়া দাওয়াতিল মাজলুম ফিল আহলি ওয়াল মালি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি সফরের কষ্ট, দুঃখজনক প্রত্যাবর্তন, লাভের পর ক্ষতি, মজলুমের বদ-দুআ এবং সম্পদ ও পরিবারে মন্দ দৃশ্য থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪৯৯. আবদুল্লাহ ইবনি সারজিস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] যখন সফর করিতেন, বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ وَعْثَاءِ السَّفَرِ، وَكَآبَةِ الْمُنْقَلَبِ، وَالْحَوْرِ بَعْدَ الْكَوْرِ، وَدَعْوَةِ الْمَظْلُومِ، وَسُوءِ الْمَنْظَرِ فِي الْأَهْلِ وَالْمَالِ وَالْوَلَدِ

আল্লাহুম্মা ইন্নী আয়ু’যু বিকা মিন ওয়াছা-ইসসাফারি ওয়া কিতাবাতিল মুনকলাবি ওয়াল হাওরে বাদাল কাওরে ওয়া দাওয়াতিল মাজলুম ওয়া সুওয়িল মাঞ্জারি ফিল আহলি ওয়াল মালি ওয়াল লাদি

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি সফরের কষ্ট, দুঃখজনক প্রত্যাবর্তন, লাভের পর ক্ষতি, নির্যাতিতের বদ-দুআ এবং সম্পদ, বাসস্থান ও সন্তানের ক্ষেত্রে মন্দ দৃশ্য থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪২.পরিচ্ছেদঃ অত্যাচারিত ব্যক্তির বদ-দুআ থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০০. আবদুল্লাহ ইবনি সারজিস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] যখন সফর করিতেন, তখন তিনি সফরের কষ্ট, দুঃখজনক প্রত্যাবর্তন, লাভের পর ক্ষতি, অত্যাচারিতের বদ-দুআ এবং মন্দ দৃশ্য থেকে আশ্রয় প্রর্থনা করিতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪৩.পরিচ্ছেদঃ দুঃখজনক প্রত্যাবর্তন থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০০. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] যখন সফর করিতেন এবং স্বীয় বাহনে আরোহণ করিতেন, তখন তিনি স্বীয় আঙ্গুল দ্বারা ইশারা করে শোবা [রাঃআঃ] অঙ্গুলী ইশারা করে দেখালেন, বলিতেনঃ

يَتَعَوَّذُ مِنْ وَعْثَاءِ السَّفَرِ، وَكَآبَةِ الْمُنْقَلَبِ، وَالْحَوْرِ بَعْدَ الْكَوْرِ، وَدَعْوَةِ الْمَظْلُومِ، وَسُوءِ الْمَنْظَرِ

ইয়া তায়াওওজু মিন ওয়াছা-ইসসাফারি ওয়া কিতাবাতিল মুনকলাবি ওয়াল হাওরে বাদাল কাওরে ওয়া দাওয়াতিল মাজলুম ওয়া সুওয়িল মাঞ্জার

হে আল্লাহ! আপনিই সফরের সাথী এবং ঘর ও সম্পদে আপনিই আমার স্থলাভিষিক্ত। হে আল্লাহ! আমি সফরের কষ্ট এবং দুঃখজনক প্রত্যাবর্তন থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪৪.পরিচ্ছেদঃ মন্দ পড়শী থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০২. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ লোকালয়ের মন্দ পড়শী থেকে আল্লাহ তাআলার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে। কেননা মরুভূমির প্রতিবেশী তো তোমার নিকট হইতে প্রস্থান করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

৪৫.পরিচ্ছেদঃ লোকের আধিপত্য থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০৩. আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

একদা রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] আবু তালহা [রাঃআঃ] –কে বললেনঃ তোমাদের বালকদের মধ্য হইতে এক বালককে আমার খিদমতের জন্য ঠিক কর। এরপর আবু তালহা [রাঃআঃ] আমাকে তাহাঁর বাহনের পেছনে উঠিয়ে নিয়ে বের হলেন। আমি রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] -এর খিদমত করতাম। যখনই তিনি কোন স্থানে অবতরণ করিতেন, আমি প্রায়ই তাঁকে বলিতে শুনতামঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَرَمِ، وَالْحُزْنِ، وَالْعَجْزِ، وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ، وَالْجُبْنِ، وَضَلَعِ الدَّيْنِ، وَغَلَبَةِ الرِّجَالِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল হাজামি, ওয়াল হুজনি ওয়াল আজ্যি ওয়াল কাসালি ওয়াল বুখ্লি, ওয়াল জুব্নি ওয়া দালায়িদ্ওদাইন ওয়া গালাবারতিল রিজালা

হে আল্লাহ! আমি চরম বার্ধক্য, চিন্তা, অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, ঋণের বোঝা এবং লোকের আধিপত্য থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪৬.পরিচ্ছেদঃ দাজ্জালের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০৪. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] কবরের আযাব এবং দাজ্জালের ফিতনা হইতে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন। তিনি বলিতেনঃ তোমরা তোমাদের কবরে ফিতনা বা পরীক্ষার সম্মুখীন হইবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪৭.পরিচ্ছেদঃ দোযখের আযাব ও দাজ্জালের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০৫. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ

أَعُوذُ بِاللَّهِ مِنْ عَذَابِ جَهَنَّمَ، وَأَعُوذُ بِاللَّهِ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَأَعُوذُ بِاللَّهِ مِنْ شَرِّ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ، وَأَعُوذُ بِاللَّهِ مِنْ شَرِّ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আউজু বিল্লাহি মিন আজাবি জানান্নামা ওয়া আউজু বিল্লাহি মিন আজাবিল কাবরি ওয়া আউজু বিল্লাহি মিন সাররিল মাসিহিজ দাজ্জাল ওয়া আউজু বিল্লাহি মিন সাররি ফিত্নাতিল মাহইয়া অয়াল মাআত

আমি দোযখের আযাব হইতে আল্লাহ তাআলার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, আর আমি কবরের আযাব হইতে আল্লাহর আশ্রয় কামনা করি, আমি দাজ্জালের ফিতনা হইতে আল্লাহর আশ্রয় চাচ্ছি এবং জীবন-মরণের ফিতনার অনিষ্ট থেকেও আল্লাহ তাআলার আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ নির্ণীত নয়

৫৫০৬. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ النَّارِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন আজাবিল কাবরি, ওয়া আঊযুবিকা মিন আজাবি্ন নার, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল মাহইয়া ওয়াল মাআত, ওয়া আঊযুবিকা মিন সাররিল মাসিহিজ দাজ্জাল

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, কবরের আযাব হইতে, আর আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি দোযখের আযাব হইতে, আর আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি জীবন-মরণের ফিতনা হইতে এবং আপনার আশ্রয় প্রার্থনা করছি দাজ্জালের অনিষ্ট থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৪৮.পরিচ্ছেদঃ মানুষ শয়তানের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০৭. আবু যর [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি মসজিদে প্রবেশ করে দেখলাম, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] সেখানে রয়েছেন। আমি এসে তাহাঁর নিকট গিয়ে বসলাম। তিনি বললেনঃ হে আবু যর [রাঃআঃ]! তুমি জ্বিন শয়তান এবং মানুষের শয়তানদের থেকে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে। আমি বললামঃ মানুষের মধ্যেও কি শয়তান হয়? তিনি বললেনঃ হ্যাঁ।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ জইফ হাদীস

৪৯.পরিচ্ছেদঃ জীবিতকালের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫০৮. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ তোমরা কবরের আযাব থেকে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে; তোমরা জীবিতকাল ও মরণকালের ফিতনা হইতেও আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে; আর তোমরা দাজ্জালের ফিতনা থেকেও আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫০৯. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] পাঁচটি বস্তু হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন, তিনি বলিতেনঃ তোমরা কবরের আযাব, দোযখের আযাব থেকে, জীবন-মরণের ফিতনা থেকে এবং কানা দাজ্জালের অনিষ্ট থেকে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫১০. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] -কে বলিতে শুনেছিঃ যে আমার আনুগত্য করলো, সে আল্লাহরই আনুগত্য করলো; আর যে ব্যক্তি আমার অবাধ্যতা করিল, সে আল্লাহরই অবাধ্যতা করিল। আর তিনি আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন কবরের আযাব হইতে, দোযখের আযাব হইতে, আর জীবিত ও মৃতদের ফিতনা এবং দাজ্জালের ফিতনা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫১১. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ তোমরা কবরের আযাব, দোযখের আযাব, জীবন ও মৃত্যুর ফিতনা এবং দাজ্জালের ফিতনা– এই পাঁচটি বস্তু থেকে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫০.পরিচ্ছেদঃ মৃত্যুর ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫১২. আবদুল্লাহ ইবনি আব্বাস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] তাহাদেরকে যেমন কুরআনের সূরা শিক্ষা দিতেন, তেমনি এই দুআ শিক্ষা দিতেন। তিনি বলিতেনঃ বল

اللَّهُمَّ إِنَّا نَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ جَهَنَّمَ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন আজাবি জাহান্নাম, ওয়া আঊযুবিকা মিন আজাবিল কাবরি, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল মাসিহিজ দাজ্জাল ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল মাহইয়া ওয়াল মাআত

হে আল্লাহ! আমরা আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি দোযখের আযাব হইতে, আর আমরা আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি, কবরের আযাব হইতে, আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি দাজ্জালের ফিতনা হইতে এবং আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি জীবন ও মৃত্যুর ফিতনা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫১৩. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেনঃ তোমরা আল্লাহ তাআলার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে আল্লাহর আযাব হইতে, আর আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে জীবন ও মরণের ফিতনা হইতে, আর কবরের আযাব এবং দাজ্জালের ফিতনা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫১.পরিচ্ছেদঃ কবরের আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫১৪. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] দুআ করিতেন এবং দুআয় তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ جَهَنَّمَ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْمَسِيحِ الدَّجَّالِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন আজাবি জাহান্নাম, ওয়া আঊযুবিকা মিন আজাবিল কাবরি, ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল মাসিহিজ দাজ্জাল ওয়া আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল মাহইয়া ওয়াল মাআত

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি দোযখের আযাব হইতে, আপনার আশ্রয় চাচ্ছি কবরের আযাব হইতে, আপনার আশ্রয় চাচ্ছি দাজ্জালের ফিতনা হইতে এবং আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি জীবন ও মরণের ফিতনা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫২.পরিচ্ছেদঃ কবরের ফিতনা থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫১৫. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] –কে তাহাঁর দুআয় বলিতে শুনেছিঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْقَبْرِ، وَفِتْنَةِ الدَّجَّالِ، وَفِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল কাবরি ওয়া ফিত্নাতিল দাজ্জাল ওয়া ফিত্নাতিল মাহইয়া ওয়াল মাআত

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি কবরের ফিতনা, দাজ্জালের ফিতনা এবং জীবন ও মৃত্যুর ফিতনা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৩.পরিচ্ছেদঃ আল্লাহর আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫১৬. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] বলেছেনঃ তোমরা আল্লাহ তাআলার নিকট আল্লাহর আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করিবে, তোমরা আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে কবরের আযাব থেকে, তোমরা আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে জীবন ও মরণের ফিতনা হইতে এবং তোমরা আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিবে কানা দাজ্জালের ফিতনা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৪.পরিচ্ছেদঃ জাহান্নামের আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫১৭. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] দোযখের আযাব, কবরের আযাব এবং কানা দাজ্জালের ফিতনা থেকে আল্লাহর নিকট প্রার্থনা করিতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫.পরিচ্ছেদঃ দোযখের আযাব থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫১৮. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] জাহান্নামের আযাব, কবরের আযাব এবং কানা দাজ্জালের ফিতনা থেকে আল্লাহর নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করিতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৬.পরিচ্ছেদঃ জাহান্নামের আগুনের উত্তাপ থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য প্রার্থনা করা

৫৫১৯. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ

اللَّهُمَّ رَبَّ جِبْرَائِيلَ وَمِيكَائِيلَ، وَرَبَّ إِسْرَافِيلَ، أَعُوذُ بِكَ مِنْ حَرِّ النَّارِ، وَمِنْ عَذَابِ الْقَبْرِ

আল্ল-হুম্মা রব্বা জিবরীলা ওয়া মীকাঈলা ওয়া রব্বা ইস্‌রা-ফীলা আঊযুবিকা মিন হাররিন নার, ওয়া মিন আজাবিল কাবর

হে আল্লাহ! জিবরাঈল ও মিকাঈলের রব এবং ইসরাফীলের রব! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি জাহান্নামের উত্তাপ ও কবরের আযাব থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫২০. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি আবুল কাসেম [সাঃআঃ] -কে তাহাঁর সালাতে বলিতে শুনেছিঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ فِتْنَةِ الْقَبْرِ، وَمِنْ فِتْنَةِ الدَّجَّالِ، وَمِنْ فِتْنَةِ الْمَحْيَا وَالْمَمَاتِ، وَمِنْ حَرِّ جَهَنَّمَ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন ফিত্নাতিল কাবরি ওয়া মিন ফিত্নাতিল দাজ্জাল ওয়া মিন ফিত্নাতিল মাহইয়া ওয়াল মাআত ওয়া মিন হাররি জাহান্নাম

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি; কবরের ফিতনা, দাজ্জালের ফিতনা, জীবন-মৃত্যুর ফিতনা এবং জাহান্নামের আগুনের উত্তাপ থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫২১. আনাস ইবনি মালিক [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ যে ব্যক্তি তিনবার আল্লাহর নিকট জান্নাত চায়, তখন জান্নাত বলেঃ

اللَّهُمَّ أَدْخِلْهُ الْجَنَّةَ

হে আল্লাহ! আপনি তাকে জান্নাতে প্রবেশ করান।

اللَّهُمَّ أَجِرْهُ مِنَ النَّارِ

আর যে ব্যক্তি তিনবার জাহান্নাম থেকে পরিত্রাণ চায়, জাহান্নাম বলেঃ হে আল্লাহ! আপনি তাকে জাহান্নাম হইতে পরিত্রাণ দিন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৭.পরিচ্ছেদঃ কৃতকর্মের অনিষ্ট থেকে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫২২. শাদ্দাদ ইবনি আউস [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ সাইয়্যিদুল ইস্তিগফার {শ্রেষ্ঠ ক্ষমা প্রার্থনা} এই যে, বান্দা বলবেঃ

 اللَّهُمَّ أَنْتَ رَبِّي لَا إِلَهَ إِلَّا أَنْتَ خَلَقْتَنِي وَأَنَا عَبْدُكَ وَأَنَا عَلَى عَهْدِكَ وَوَعْدِكَ مَا اسْتَطَعْتُ، أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا صَنَعْتُ، أَبُوءُ لَكَ بِذَنْبِي، وَأَبُوءُ لَكَ بِنِعْمَتِكَ عَلَيَّ، فَاغْفِرْ لِي فَإِنَّهُ لَا يَغْفِرُ الذُّنُوبَ إِلَّا أَنْتَ

আল্লা-হুম্মা আনতা রব্বী লা ইলা-হা ইল্লা আনতা খলাক্বতানী ওয়া আনা ‘আব্দুকা, ওয়া আনা ‘আলা ‘আহদিকা ওয়া ওয়া‘দিকা মাস্তাত্বা‘তু। আ‘উযু বিকা মিন শাররি মা সানা‘তু, আবূউ লাকা বিযাম্বী, ওয়া আবূউ বিনি‘মাতিকা ‘আলাইয়্যা। ফাগফির লী, ফাইন্নাহূ লা ইয়াগফিরুয যুনূবা ইল্লা আনতা

হে আল্লাহ! আপনি আমার রব! আপনি ব্যাতীত কোন ইলাহ নেই, আপনি আমাকে সৃষ্টি করিয়াছেন, আমি আপনার বান্দা, আমি আপনার সাথে কৃত ওয়াদা ও অঙ্গীকারের উপর প্রতিষ্ঠিত রয়েছি। যতটুকু আমার দ্বারা সম্ভব। আমি যা করেছি তার অনিষ্ট হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, আপনার কাছে আমি আমার গুনাহের কথা স্বীকার করছি। আর আপনার নিয়ামতের কথা স্বীকার করছি। আমাকে ক্ষমা করুন। আপনি ব্যতীত আর কেউ গুনাহ মাফ করিতে পারে না।

যদি কেউ এই দুআ ভোরবেলা দৃঢ় বিশ্বাসের সাথে পড়ে। তারপর মৃত্যুবরণ করে, তবে সে জান্নাতে প্রবেশ করিবে। আর যদি কেউ দৃঢ় বিশ্বাসের সাথে সন্ধ্যায় পড়ে, সে জান্নাতে প্রবেশ করিবে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৮.পরিচ্ছেদঃ আমলের অনিষ্ট হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫২৩. আবদা ইবনি আবু লুবাবা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

ইবনি ইয়াসাফ তাহাঁর নিকট বর্ণনা করিয়াছেন যে, একদা তিনি উম্মুল মুমিনীন আয়েশা [রাঃআঃ] -কে জিজ্ঞাসা করেছিলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] ইন্তিকালের পূর্বে কোন দুআ বেশী পড়তেন? তিনি বললেনঃ তিনি প্রায়ই এঈ দুআ পড়তেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا عَمِلْتُ، وَمِنْ شَرِّ مَا لَمْ أَعْمَلْ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন্ শার্রি মা- আমিল্তু ওয়া মিন শার্রি মা- লাম আমল লাম আমাল

হে আল্লাহ! আমি আমার আমলের অনিষ্ট হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি যা আমি করেছি এবং যা এখনও করিনি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫২৪. ইবনি ইয়াসাফ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

আয়েশা [রাঃআঃ] -কে জিজ্ঞাসা করা হলো, নাবী [সাঃআঃ] কি দুআ করিতেন? তিনি বলিলেন, তিনি প্রায়ই দুআয় বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا عَمِلْتُ، وَمِنْ شَرِّ مَا لَمْ أَعْمَلْ بَعْدُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন্ শার্রি মা-আমিল্তু ওয়া মিন শার্রি মা-লাম আমল বা,দু

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, আমি যা করেছি এবং যা এখনো করিনি, তার অনিষ্ট থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫২৫. ফারওয়া ইবনি নওফাল [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি উম্মুল মুমিনীন আয়েশা [রাঃআঃ] -কে জিজ্ঞাসা করলামঃ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] কোন দুআ করিতেন? তিনি বলিলেন, তিনি বলিতেনঃ

أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا عَمِلْتُ، وَمِنْ شَرِّ مَا لَمْ أَعْمَلْ

আঊযুবিকা মিন্ শার্রি মা-আমিল্তু ওয়া মিন শার্রি মা-লাম আমল

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, আমি যা করেছি তার অনিষ্ট হইতে এবং যা করিনি তার অনিষ্ট হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫২৬. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেনঃ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا عَمِلْتُ، وَمِنْ شَرِّ مَا لَمْ أَعْمَلْ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন্ শার্রি মা-আমিল্তু ওয়া মিন শার্রি মা-লাম আমল

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, আমি যা করেছি তার অনিষ্ট এবং যা করিনি তার অনিষ্ট হইতে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৯.পরিচ্ছেদঃ যা করা হয়নি তার অনিষ্ট হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫২৭. ফারওয়া ইবনি নওফাল [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি আয়েশা [রাঃআঃ] -কে জিজ্ঞাসা করলামঃ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] যা দ্বারা দুআ করিতেন, তা আমার নিকট বর্ণনা করুন। তিনি বলিলেন, তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا عَمِلْتُ، وَمِنْ شَرِّ مَا لَمْ أَعْمَلْ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন্ শার্রি মা-আমিল্তু ওয়া মিন শার্রি মা-লাম আমল

হে আল্লাহ! আমি যা করেছি তার অপকারিতা এবং যা করিনি তার অনিষ্ট থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫২৮. ফারওয়া ইবনি নওফাল [রহমাতুল্লাহি আলাইহি] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, একদা আমি আয়েশা [রাঃআঃ] -কে জিজ্ঞাসা করলামঃ আমাকে ঐ দুআ সম্বন্ধে অবহিত করুন, যা দ্বারা রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] দুআ করিতেন? তিনি বলিলেন, তিনি বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّ مَا عَمِلْتُ، وَمِنْ شَرِّ مَا لَمْ أَعْمَلْ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন্ শার্রি মা-আমিল্তু ওয়া মিন শার্রি মা-লাম আমল

হে আল্লাহ! আমি যা করেছি, তার অনিষ্ট হইতে এবং আমি যা করিনি, তার অনিষ্ট হইতে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৬০.পরিচ্ছেদঃ মাটিতে ধসে যাওয়া হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫২৯. ইবনি উমার [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

আমি রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] -কে বলিতে শুনেছিঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِعَظَمَتِكَ أَنْ أُغْتَالَ مِنْ تَحْتِي

আল্ল-হুম্মা আ‘ঊযু বি‘ আযামাতিকা আন উগতা-লা মিন তাহ্‌তী

হে আল্লাহ! আমি আমার নিচের দিকে ধসে যাওয়া থেকে আপনার মর্যাদার আশ্রয় গ্রহণ করছি।

জুবায়র [রাঃআঃ] বলেনঃ এই হাদীসে মাটিতে ধসে যাওয়াকেই বুঝানো হইয়াছে। উবাদা [রাঃআঃ] বলেনঃ আমি জানি না, এটা নাবী [সাঃআঃ] -এর কথা, না জুবায়র [রাঃআঃ] -এর কথা।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫৩০. ইবনি উমার [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, নাবী [সাঃআঃ] বলিতেনঃ হে আল্লাহ! এরপর উক্ত দুআর উল্লেখ করিলেন। এর শেষদিকে বললেনঃ আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি মাটিতে ধসে যাওয়া থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৬১.পরিচ্ছেদঃ উঁচু স্থান হইতে পড়া এবং ঘরচাপা পড়া হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫৩১. আবুল ইয়াসার [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ التَّرَدِّي، وَالْهَدْمِ، وَالْغَرَقِ، وَالْحَرِيقِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ يَتَخَبَّطَنِي الشَّيْطَانُ عِنْدَ الْمَوْتِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَمُوتَ فِي سَبِيلِكَ مُدْبِرًا، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَمُوتَ لَدِيغًا

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিনাত তারাদ্দি ওয়াল হাদমি ওয়াল গারাক্বি ওয়াল হারিক্বি। ওয়া আউজুবিকা আইঁ ইয়াতাখাব্বাত্বানিশ শায়ত্বানু ইংদাল মাওতি, ওয়া আউজুবিকা আন আমুতা ফি সাবিলিকা মুদবিরা। ওয়া আউজুবিকা আন আমুতা লাদিগা

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি উপর থেকে পড়ে যাওয়া, ঘরচাপা পড়া, পানিতে ডুবে যাওয়া এবং আগুনে দগ্ধীভূত হওয়া থেকে। আর আমি মৃত্যুকালে শয়তানের ছোঁ মারা থেকে আশ্রয় চাচ্ছি, আর আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি আপনার পথে পৃষ্ঠ প্রদর্শন অবস্থায় মারা যাওয়া হইতে এবং আপনার আশ্রয় গ্রহণ করছি সাপ বিচ্ছুর দংশনে মৃত্যুবরণ করা থেকে।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫৩২. আবুল ইয়াসার [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] দুআ করার সময় বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَرَمِ، وَالتَّرَدِّي، وَالْهَدْمِ، وَالْغَمِّ، وَالْحَرِيقِ، وَالْغَرَقِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ يَتَخَبَّطَنِي الشَّيْطَانُ عِنْدَ الْمَوْتِ، وَأَنْ أُقْتَلَ فِي سَبِيلِكَ مُدْبِرًا، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَمُوتَ لَدِيغًا

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিনাল হারামি ওয়াত তারাদ্দি ওয়াল হাদমি ওয়াল গারাক্বি ওয়াল হারিক্বি। ওয়া আউজুবিকা আইঁ ইয়াতাখাব্বাত্বানিশ শায়ত্বানু ইংদাল মাওতি, ওয়া আন আকতালাফি সাবিলিকা মুদবিরা। ওয়া আউজুবিকা আন আমুতা লাদিগা

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি চরম বার্ধক্য, উপর থেকে পড়া, ঘরচাপা পড়া এবং দুঃখ-দুশ্চিন্তা, অগ্নিকান্ড এবং পানিতে ডুবে মৃত্যুবরণ করা থেকে, আর আপনার আশ্রয় গ্রহণ করছি যাতে মৃত্যুকালে শয়তান আমাকে বিপথগামী করিতে না পারে এবং আপনার আশ্রয় চাচ্ছি যাতে আপনার রাস্তায় জিহাদকালে পৃষ্ঠ প্রদর্শনপূর্বক মারা না যাই। আর আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, যাতে সর্প দংশনে মারা না যাই।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫৩৩. আবুল আসওয়াদ সালামী [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

ঐরূপ বর্ণনা করিয়াছেন যে, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْهَدْمِ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ التَّرَدِّي، وَأَعُوذُ بِكَ مِنَ الْغَرَقِ، وَالْحَرِيقِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ يَتَخَبَّطَنِي الشَّيْطَانُ عِنْدَ الْمَوْتِ، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَمُوتَ فِي سَبِيلِكَ مُدْبِرًا، وَأَعُوذُ بِكَ أَنْ أَمُوتَ لَدِيغًا

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজুবিকা মিনাল হাদমি ওয়া আউজুবিকা মিনাত তারাদ্দি ওয়া আউজুবিকা মিনাল গারাক্বি ওয়াল হারিক্বি। ওয়া আউজুবিকা আন ইয়াতাখাব্বাত্বানিশ শায়ত্বানু ইংদাল মাওতি, ওয়া আউজুবিকা আন আমুতা ফি সাবিলিকা মুদবিরা। ওয়া আউজুবিকা আন আমুতা লাদিগা

হে আল্লাহ! আমি আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি- ঘরচাপা পড়া হইতে এবং আপনার নিকট আশ্রয় চাচ্ছি উপর হইতে পড়ে যাওয়া থেকে, আর আমি আপনার আশ্রয় চাচ্ছি অগ্নিকাণ্ড এবং পানিতে ডুবে মরা থেকে, আর আপনার আশ্রয় গ্রহণ করছি, পাছে মৃত্যুকালে শয়তান আমাকে বিপথগামী করে, আর আমি আপনার আশ্রয় গ্রহণ করছি, যাতে আপনার রাস্তায় পৃষ্ঠ প্রদর্শনপূর্বক মৃত্যুবরণ না করি, আর আমি আপনার আশ্রয় চাচ্ছি যাতে সর্প দংশনে মৃত্যুবরণ না করি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

পরিচ্ছেদঃ আল্লাহর অসন্তুষ্টি হইতে আল্লাহর সন্তুষ্টির আশ্রয় গ্রহণ

৫৫৩৪. আয়েশা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি একরাতে রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] -কে আমার বিছানায় তালাশ করলাম। না পেয়ে আমি বিছানার মাথার দিকে হাত দিলাম। আমার হাত তাহাঁর পায়ের তলদেশে লাগলো। এ সময় তিনি সিজদায় থেকে বলছিলেনঃ

أَعُوذُ بِعَفْوِكَ مِنْ عِقَابِكَ، وَأَعُوذُ بِرِضَاكَ مِنْ سَخَطِكَ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْكَ

আউজু বি আফইয়িকা মিন ইকাবিকা, ওয়া আউজু বি রিদাকা মিন সাখাতিকা ওয়া আউজুবিকা মিনকা

হে আল্লাহ! আমি আপনার আযাব হইতে আপনার ক্ষমার আশ্রয় প্রার্থনা করছি। আর আপনার অসন্তুষ্টি হইতে আপনার সন্তুষ্টির আশ্রয় চাচ্ছি। আর আমি আপনার থেকে আপনার আশ্রয় কামনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

পরিচ্ছেদঃ কিয়ামত দিবসের সংকীর্ণাবস্থা হইতে আশ্রয় প্রার্থনা করা

৫৫৩৫. আসিম ইবনি হুমায়দ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, আমি আয়েশা [রাঃআঃ] -কে জিজ্ঞাসা করলামঃ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] রাতের নামায কি দিয়ে আরম্ভ করিতেন? তিনি বললেনঃ তুমি আমাকে এমন প্রশ্ন করেছ, যে সম্পর্কে আমাকে কেউই জিজ্ঞাসা করেনি। তিনি দশবার তাকবীর বলিতেন, দশবার সুবহানাল্লাহ্ বলিতেন, দশবার ইস্তিগফার করিতেন। পরে বলিতেনঃ

اللَّهُمَّ اغْفِرْ لِي وَاهْدِنِي، وَارْزُقْنِي، وَعَافِنِي

আল্লা-হুম্মাগফির লী, ওয়াহদিনী, ওয়ারযুক্বনী ওয়াজবুরনী, ওয়া‘আফিনি

হে আল্লাহ্! আমাকে ক্ষমা করুন, আমাকে পথ প্রদর্শন করুন, আমাকে রিযিক দান করুন, আমাকে নিরাপদ রাখুন, আর তিনি কিয়ামত দিবসের সংকীর্ণাবস্থা হইতে আশ্রয় চাইতেন।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৬২.পরিচ্ছেদঃ যে দুআ শ্রবণ করা হয় না, তা থেকে আশ্রয় চাওয়া

৫৫৩৬. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলেছেনঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ عِلْمٍ لَا يَنْفَعُ، وَمِنْ قَلْبٍ لَا يَخْشَعُ، وَمِنْ نَفْسٍ لَا تَشْبَعُ، وَمِنْ دُعَاءٍ لَا يُسْمَعُ

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজু বিকা মিন ইল্মিন লা ইয়ানফাউ ওয়া মিন কালবি লা ইয়াখসায়ু ওয়া মিন নাফসিন লা তাসবায়ু ওয়া মিন দুয়াইন লা ইয়াসমায়ু 

হে আল্লাহ্! আমি যে বিদ্যা উপকারে আসে না, যে অন্তর ভয় করে না, যে প্রবৃত্তি তৃপ্ত হয় না এবং যে দুআ শ্রবণ করা হয় না, তা থেকে আপনার আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ হাসান সহীহ

৫৫৩৭. আবু হুরাইরা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

তিনি বলেন, রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] বলিতেন,

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ عِلْمٍ لَا يَنْفَعُ، وَمِنْ قَلْبٍ لَا يَخْشَعُ، وَمِنْ نَفْسٍ لَا تَشْبَعُ، وَمِنْ دُعَاءٍ لَا يُسْمَعُ

আল্লাহুম্মা ইন্নি আউজু বিকা মিনাল আরবিয়ি মিন ইল্মিন লা ইয়ানফাউ ওয়া মিন কালবি লা ইয়াখসায়ু ওয়া মিন নাফসিন লা তাসবায়ু ওয়া মিন দুয়াইন লা ইয়াসমায়ু 

হে আল্লাহ্! আমি অনুপকারী ইলম, নির্ভয় অন্তর, অতৃপ্ত প্রবৃত্তি এবং ঐ দুআ থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, যা শ্রবণ করা হয় না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৬৩.পরিচ্ছেদঃ যে দুআ কবূল হয় না, তা থেকে পানাহ চাওয়া

৫৫৩৮. আবদুল্লাহ ইবনি হারিস্ [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

যখন যায়দ ইবনি আরকাম [রাঃআঃ] -কে বলা হতো আপনি রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] থেকে যা শুনেছেন, তা আমাদের নিকট বর্ণনা করুন। তখন তিনি বলিতেনঃ রসূলুল্লাহ [সাঃআঃ] আমাদের নিকট যা বর্ণনা করিয়াছেন, আমি তোমাদের নিকট তাই বর্ণনা করবো। তিনি আমাদেরকে বলিতে আদেশ করিয়াছেন, আমরা যেন বলিঃ

اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنَ الْعَجْزِ وَالْكَسَلِ، وَالْبُخْلِ، وَالْجُبْنِ، وَالْهَرَمِ، وَعَذَابِ الْقَبْرِ، اللَّهُمَّ آتِ نَفْسِي تَقْوَاهَا، وَزَكِّهَا أَنْتَ خَيْرُ مَنْ زَكَّاهَا، أَنْتَ وَلِيُّهَا وَمَوْلَاهَا، اللَّهُمَّ إِنِّي أَعُوذُ بِكَ مِنْ نَفْسٍ لَا تَشْبَعُ، وَمِنْ قَلْبٍ لَا يَخْشَعُ، وَمِنْ عِلْمٍ لَا يَنْفَعُ، وَدَعْوَةٍ لَا تُسْتَجَابُ

আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিনাল আজ্যি ওয়াল কাসালি, ওয়াল বুখলি, ওয়াল জুবনি, ওয়াল হারামি ওয়া আযা-বিল কবরি। আল্ল-হুম্মা আ-তি নাফসী তাক্‌ওয়া-হা ওয়াযাক্কিহা-আন্‌তা খইরু মান্‌ যাক্‌কা-হা আন্‌তা ওয়ালী ইউহা- ওয়া মাওলা-হা-, আল্ল-হুম্মা ইন্নী আঊযুবিকা মিন নাফ্‌সিন লা- তাশ্‌বাউ ওয়া মিন কালবিন্‌ লা-ইয়াখ্‌শাউ ওয়ামিন ওয়া মিন ইলমিন ল তানফাউ ওয়া দাওয়াতি লা তুসতাজাবু

হে আল্লাহ্! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি, অপারগতা, অলসতা, কৃপণতা, কাপুরুষতা, চরম বার্ধক্য এবং কবরের আযাব থেকে। হে আল্লাহ্! আমার প্রবৃত্তিকে পরহেযগারী দান করুন এবং একে পবিত্র করুন। আপনি তো উত্তম পবিত্রকারী, আপনিই এর সর্বময় অধিপতি। হে আল্লাহ্! আমি আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি অতৃপ্ত প্রবৃত্তি, নির্ভয় অন্তর, অনুপকারী ইলম এবং ঐ দুআ থেকে, যা কবূল হয় না।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

৫৫৩৯. উম্মে সালামা [রাঃআঃ] হইতে বর্ণিতঃ

নাবী [সাঃআঃ] যখন নিজ ঘর হইতে বের হইতেন তখন বলিতেনঃ

بِسْمِ اللَّهِ، رَبِّ أَعُوذُ بِكَ مِنْ أَنْ أَزِلَّ أَوْ أَضِلَّ، أَوْ أَظْلِمَ أَوْ أُظْلَمَ، أَوْ أَجْهَلَ أَوْ يُجْهَلَ عَلَيَّ

বিসমিল্লাহি রব্বা আউজু বিকা মিন আন আজিল্লা আও আদিল্লা আও আজলিমা আও উজলামা আও আজহালা আও ইউজহালা আলাইয়া

আমি আল্লাহর নামে বের হচ্ছি। হে আমার রব! আমি পদস্খলন হওয়া থেকে, পথভ্রষ্টতা হইতে, কারো উপর নির্যাতন করা এবং কারো দ্বারা নির্যাতিত হওয়া থেকে এবং আমি মূর্খতাসুলভ আচরণ থেকে এবং আমার উপর অন্যের মূর্খতাসুলভ আচরণ থেকে আপনার নিকট আশ্রয় প্রার্থনা করছি।

আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার দোয়া হাদিসের তাহকিকঃ সহীহ হাদীস

By ইমাম নাসাঈ

এখানে কুরআন শরীফ, তাফসীর, প্রায় ৫০,০০০ হাদীস, প্রাচীন ফিকাহ কিতাব ও এর সুচিপত্র প্রচার করা হয়েছে। প্রশ্ন/পরামর্শ/ ভুল সংশোধন/বই ক্রয় করতে চাইলে আপনার পছন্দের লেখার নিচে মন্তব্য (Comments) করুন। “আমার কথা পৌঁছিয়ে দাও, তা যদি এক আয়াতও হয়” -বুখারি ৩৪৬১। তাই এই পোস্ট টি উপরের Facebook বাটনে এ ক্লিক করে শেয়ার করুন অশেষ সাওয়াব হাসিল করুন

Leave a Reply